Date : 2019-02-21

Breaking
পুলওয়ামার জের বাইশ গজে। পাকিস্তানের বিরুদ্ধে খেলতে চাইছে না ভারত। দেশের ক্রিকেট মহলে ক্রমশই জোরালো হচ্ছে এই দাবি।
সন্ত্রাসবাদের মদতদাতাদের বিরুদ্ধে চাপ বাড়াতে রাজি সৌদি আবর। সৌদি রাজকুমার মহম্মদ বিন সলমনের সঙ্গে বৈঠকের পর জানালেন নরেন্দ্র মোদী। সন্ত্রাসবাদীদের গতিবিধি নিয়ে গোয়েন্দা তথ্য আদানপ্রদান হবে।
আদালত অবমাননার দায়ে দোষী সাব্যস্ত অনিল অম্বানি। চার সপ্তাহের মধ্যে সুদ সহ ৫৫৯ কোটি টাকা এরিকসনকে ফেরতের নির্দেশ সুপ্রিম কোর্টের। অন্যথায় জেলে যেতে হতে পারে অনিল অম্বানিকে।
ইস্ট-ওয়েস্ট মেট্রোর ভাড়া নির্ধারণ। প্রথম ২ কিলোমিটার পর্যন্ত ভাড়া থাকবে ৫ টাকা। ২ থেকে ৫ কিলোমিটার ভাড়া ১০ টাকা। ৫ থেকে ১০ কিলোমিটারের ভাড়া ২০ টাকা।
জাল শংসাপত্র দিয়ে অধ্যাপিকা নিয়োগের মামলায় দোষী সাব্যস্ত বিশ্বভারতী বিশ্ববিদ্যালয়ের প্রাক্তন উপাচার্য দিলীপ সিনহা। দোষী সাব্যস্ত অধ্যাপিকা মুক্তি দেব ও কর্মসচিব দিলীপ মুখোপাধ্যায়।
ধর্মতলা এপিডিআররের যুদ্ধ বিরোধী মিছিল। মিছিল চলাকালীন হামলা একদল যুবকের। হামলা চালিয়েছে বিজেপি, অভিযোগ এপিডিআরের। ঘটনায় গ্রেফতার ৪।
হাওড়ায় ছেলেধরা সন্দেহে গণপিটুনি এক যুবককে। গুরুতর জখম যুবককে উদ্ধার করে বেলুড় থানার পুলিশ। এলাকায় চাঞ্চল্য।
গুজব ও হিংসা ছড়ানো নিয়ে ট্যুইট করলেন মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়। দেশের রাজনৈতিক দলগুলির একাংশ থেকে ছড়ানো হচ্ছে গুজব। যা দেশের রাজনীতিতে দূষণ ছড়াচ্ছে নিন্দনীয় ভাবে। তোপ মুখ্যমন্ত্রীর।
রাজ্য সরকারের মুকুটে পরপর নতুন পালক। কন্যাশ্রী প্রকল্পের পর রাষ্ট্রসংঘের সেরা পাঁচে উৎকর্ষ বাংলা ও সবুজ সাথী প্রকল্প। ২টি প্রকল্প পাচ্ছে রাষ্ট্রসংঘের পুরস্কার। প্রকল্প দুটি মুখ্যমন্ত্রীর মস্তিস্ক প্রসূত।

ক্যালেন্ডারের পাতায় ঠাঁই পেল তাহাদের কথা..

কলকাতা: সমান ভাবে বেঁচে থাকার অধিকার পেয়েও পর্দার আড়ালে চোখ মোছে ওরা। সমাজে এখনও অমর গাঁথা হতে পারেনি  ” আর একটি প্রেমের গল্প “। কিন্তু নিজেদের অধিকারকে প্রতিষ্ঠা করতে অনেক লড়াই করতে হয়েছে ওদের। আইন স্বীকৃতি দিলেও এই সমাজে এখনও বাঁকা দৃষ্টির নিচেই থাকতে হয়। সেই চিন্তা ভাবনাকে বদলে দিতে নিরন্তর প্রচেষ্টা করে চলেছে ওরা। যদিও এখনও পথ চলা অনেকটাই বাকি। আর সেই যাত্রা নেহাত সহজ নয়। সমকামি বা রূপান্তরকামীদের লড়াইটা যেমনই কঠিন, নিজেদের পরিচয় নিয়ে তেমনই উত্থান পতনের জীবন যাপন করতে হয় তাদের। নিজেদের পরিচয়কে সমাজে প্রতিষ্ঠা করতে অভিনব সব চিন্তা ভাবনা করে চলেছে রূপান্তরকামীরা।

নতুন বছরে তেমনই এক অভিনব উদ্যোগ নিল সন্দীপ্তা ছেত্রী ও তার টিম। নতুন ক্যালেন্ডারের উদ্বোধন, না তবে এ কোন সাধারন ক্যালেন্ডার নয়। প্রচলিত রোল মডেলের ছবির জায়গায় নতুন বছরের ক্যালেন্ডারে একঝাঁক রূপান্তরকামীর মুখ দেখা যাবে। ফটোশ্যুটে কাজ করেছেন তারাই। ইতিমধ্যেই তৈরী হয়ে গিয়েছে ক্যলেন্ডারের কভারফটো। পরিকল্পনা অনেকদিনের হলেও অর্থের অভাবে থমকে যায় এই অভিনব উদ্যোগ।

সংবাদ মাধ্যমের কাছে সন্দীপ্তা ছেত্রী বলেন, এই ক্যালেন্ডার শুধু রূপান্তরকামীদের ছবি নিয়ে তৈরী ক্যালেন্ডার নয়। বরং এলজিবিটির আইকিউ নিয়ে। অর্থাৎ লেসবিয়ান, গে, ট্রান্সজেন্ডার, বাইসেক্সুয়াল, ইন্টারসেক্স, কুয়ের এই ছয় রকম বিষয় নিয়ে ক্যালেন্ডারের প্রত্যেকটা মাসের পাতায় বিস্তারিত ভাবে লেখা থাকবে। সমাজে নিজেদের পরিচয় এবং জীবনের ধারাকে আরও বেশি পরিচিত করতে এই অভিনব উদ্যোগ নিয়েছেন তারা। অন্যান্য ক্যালেন্ডারের মতো ঝা-চকচকে ফটোশ্যুট না থাকলেও ক্যালেন্ডারটি একদম ভিন্ন স্বাদের।

তাদের দিকে সাহায্যের হাত বাড়িয়ে দিয়েছেন অনেকেই। এই ক্যালেন্ডারের ফটোগ্রাফার শুভজিৎ নস্কর তার সামান্য প্রয়াসকে সম্বল করে সাহায্যের হাত বাড়িয়ে দিয়েছেন। রূপান্তরকামীরা যে সমাজে অন্য আর সকলের মতোই কাজের অভিজ্ঞতা দিয়ে সেই কথাই বোঝালেন শুভজিৎ। নিরন্তর পাশে থেকে তাদের জীবনশৈলীর সঙ্গে পরিচিত হয়েছেন তিনি। এখন এই অভিনব ক্যালেন্ডার খুব সামান্য কয়েকজন মানুষের মধ্যে ছড়িয়ে দিয়েই খশি হয়েছেন তিনি। এই ক্যালেন্ডারে রয়েছেন মোট ৩০জন রূপান্তরকামী মডেল। তাদের ছবির সঙ্গে থাকছে সমাজের তাদের প্রতিদৃষ্টি ভঙ্গির কথা। ক্যালেন্ডারে পাতায় হয়তো বছর গড়িয়ে আসবে নতুন বছর। পুরনো হবে বিগত বছরের দিনগুলি। কিন্তু সমাজের দৃষ্টিভঙ্গি পরিবর্তনে তাদের প্রতিদিনের উদ্যোগগুলি হবে আরও রঙিন। এমন আশায় বুক বেঁধে তাদের পথচলাকে কুর্ণিশ জানাতেই হয়।