Date : 2020-10-23

বিদেশের মাটিতে তাইল্যান্ডকে হারিয়ে অপ্রতিরোধ্য জয় ভারতের

ওয়েব ডেস্কঃ ভারতের মাঠ ফুটবলের স্বপ্ন দেখে। এ দেশের মাটিতে রয়েছে ফুটবলের স্বর্ণালী ইতিহাস। ইউরোপই হোক বা লাতিন আমেরিকা গোটা বিশ্বের ফুটবলের উত্তেজনা উপভোগ করতে ভারতীয়দের নজর থাকে ইউরো কাপ, কোপা আমেরিকা বা ফুটবল বিশ্বকাপের দিকে। আন্তর্জাতিক ফুটবলের মঞ্চে এবার গোটা পৃথিবী দেখল ভারতের ফুটবলকে। সুনীল,গুরপ্রীত, অনিরুদ্ধরা আবারও নতুন করে স্বপ্ন দেখাল ফুটবলপ্রেমী ভারতবাসীকে। ১৯৬৪-র পর ২০১৯-এ আবারও ফিরে এল এশিয়ান কাপের বিজয় মুকুট। রবিবার আবু ধাবির আল নাহইয়ান স্টেডিয়াম সেই ঘটনারই সাক্ষী থাকল।
২৭ মিনিটে পেনাল্টি থেকে গোল করে ভারতকে এগিয়ে দেন সুনীল। ৬ মিনিট পেরোনোর আগেই ম্যাচের সমতা ফেরান তাইল্যান্ডের অধিনায়ক তেরাসিল দাংদা। আর এদিনই জোড়া গোল করে ভারতীয় ফুটবলের সফলতম স্ট্রাইকার টপকে গেলেন লিয়োনেল মেসিকে। ফিফা র‌্যাঙ্কিংয়ে ভারত ৯৭, তাইল্যান্ড ১১৮। তবুও ওভার কনফিডেন্স দেখায়নি ভারতের ফুটবলাররা। সুনীলের কথায়, ‘‘আমাদের রণনীতি ছিল, প্রতিপক্ষকে খেলার সুযোগ না দেওয়া।’’ খেলার দ্বিতীয়ার্ধে ছিল অন্য চমক। ৪৭ মিনিটে দুরন্ত গোল করেন সুনীল ছেত্রী। ৬৮ মিনিটে গোল করেন অনিরুদ্ধ। মিনিট দশেকের মধ্যেই কোচ স্টিভন কনস্ট্যান্টাইনের রণনীতি মাঠে অন্য সৈনিক নামায়। আশিক কুরিয়ানের পরিবর্তে মাঠে নামেন জেজে লালপেখলুয়া। দু’মিনিটের মধ্যেই অসাধারণ গোল করে কোচের সিদ্ধান্তের মর্যাদা দেন তিনি। এই জয়ের পর সুনীল বলেছেন,‘‘নিজের গোল নিয়ে দশ বছর পরে ভাবব। এই মুহূর্তে কে গোল করল তা গুরুত্বপূর্ণ নয়। আসল হচ্ছে দলের জয়।’’এরপরই সোশ্যাল মিডিয়া ছেয়ে যায় শুভেচ্ছা বার্তায়। এশিয়াে কাপে সর্বোচ্চ ব্যবধানে ভারতের জয়ে সোশ্যাল মিডিয়ায় উচ্ছ্বসিত ক্রিকেটার সুরেশ রায়না থেকে অভিনেতা অভিষেক বচ্চন।