Date : 2020-10-30

ভারত-পাক ম্যাচ: উদ্বেগ প্রকাশ করে আইসিসি-কে মেল বিসিসিআই-এর

ওয়েব ডেস্ক: বিশ্ব ক্রিকেট যুদ্ধে ১৬ই জুন ম্যাঞ্চেস্টারের মাটিতে মুখোমুখি হতে চলেছে ভারত-পাকিস্তান। পুলওয়ামার ঘটনার প্রভাবে ম্যাচ শুরুর আগে থেকেই ক্রিকেটের মাঠ রণভূমিতে পরিনত হয়েছে ভারত-পাকিস্তানের। আদৌ সেই ম্যাচ কতটা উপভোগ করতে পারবেন অনুরাগীরা, সেটাই এখন লাখ টাকার প্রশ্ন। পাক জঙ্গি সংগঠনের আত্মঘাতী হামলার পর বাইশ গজের যুদ্ধে দুই দেশের অংশ নেওয়া উচিৎ কিনা, সেই ব্যাপারে নানামহলের নানা মত উঠে আসছে। শুক্রবার বিসিসিআইয়ের কার্যনির্বাহী সভায় ম্যাচ নিয়ে চূড়ান্ত কোনও সিদ্ধান্ত না হলেও পরদিন ক্রিকেটের নিয়ামক সংস্থাকে কিছু উদ্বেগের কথা জানিয়ে খোলা চিঠি দিল ভারতীয় ক্রিকেট বোর্ড।

আইসিসি’কে শনিবার একটি মেল করে সমগ্র বিষয়টি জানানো হয়। পুলওয়ামার ঘটনার পর পকিস্তানের সঙ্গে ক্রিকেটের মাঠে সম্পর্ক স্থাপন নিয়ে রীতিমতো উদ্বেগ প্রকাশ করা হয় চিঠিতে। বিশ্বকাপে ভারতের পাকিস্তানের সঙ্গে ম্যাচে ক্রিকেটার ও অফিসিয়ালদের নিরাপত্তার বিষয়ে যে তারা উদ্বিগ্ন সেই বিষয়ে পরিষ্কার মেলে জানিয়েছে বিসিসিআই। সেই সঙ্গে ক্রিকেটের নিয়ামক সংস্থাকে বিশ্বকাপে ভারত-পাক ম্যাচ নিয়ে নিরাপত্তা আটোসাঁটো করার বিষয়েও দাবি জানানো হয়েছে। আইসিসি’র সদস্য দেশগুলির প্রায় প্রত্যেকেই পুলওয়ামা ঘটনার তীব্র নিন্দায় সরব হয়েছে। এমনকি জঙ্গি কার্যকলাপের সঙ্গে যুক্ত যে কোন দেশের বিরুদ্ধেই কড়া পদক্ষেপ নিতে আর্জি জানিয়েছে বিসিসিআই-এর কমিটি অফ অ্যাডমিনিষ্ট্রেটর। প্রয়োজনে সেই সব দেশকে আন্তর্জাতিক ক্রিকেট থেকে বাদ দেওয়ার অনুরোধও করা হয়েছে চিঠিতে। তাছাড়া গ্যালারিতে থাকা সাধারণ দর্শকদের নিরাপত্তা নিয়েও উদ্বেগ প্রকাশ করেছে বিসিসিআই। প্রসঙ্গত, পুলওয়ামায় শহিদ জওয়ান পরিবারদের পাশে দাঁড়াতে আসন্ন আইপিএলে উদ্বোধনী অনুষ্ঠান বাতিল করার দিদ্ধান্ত জানায় সিওএ। অনুষ্ঠানের জন্য বরাদ্দ টাকা শহিদ জওয়ান পরিবারের হাতে তুলে দেওয়া হবে বলে জানানো হয়। তবে বিশ্ব ক্রিকেটের ময়দানে ভারত-পাকিস্তান ম্যাচ আদৌ যে নিশ্চয়তার দিকে যাচ্ছে না তা এদিন বিসিসিআই-এর চিঠির নমুনা দেখেই বোঝা গেছে।