Date : 2021-02-28

সমলিঙ্গ সম্পর্কে ভারতের দ্রুততম অ্যাথলিট দ্যুতি চন্দ…

ওয়েব ডেস্ক: ভারতে প্রথমবার কোনো মহিলা অ্যাথলিট নিজে মুখে স্বীকার করলেন যে তিনি সমকামী। তিনি আর কেউ নন, ভারতের দ্রুততম এই মহিলা অ্যাথলিট দ্যুতি চন্দ।গত তিন বছর ধরে এক তরুণীর সঙ্গে সমলিঙ্গের সম্পর্কে রয়েছে তিনি।

সেই কারণেই তার পরিবার তাঁর সঙ্গে সম্পর্ক ছিন্ন করতে চায়। কিন্তু দ্যুতি অনড়। সেই তরুণীকেই যে তিনি জীবনসঙ্গিনী হিসেবে পেতে চান, তা স্পষ্ট করে জানিয়েছেন প্রথম সারির এই অ্যাথলিট।দ্যুতিই ভারতের প্রথম ক্রীড়াবিদ, যিনি সমলিঙ্গ সম্পর্কের কথা প্রকাশ্যে ঘোষণা করলেন।

গত মাসেই দোহায় এশিয়ান অ্যাথলেটিক্স চ্যাম্পিয়নশিপ থেকে ১০০ মিটারে নিজের জাতীয় রেকর্ড ভেঙে নতুন রেকর্ড গড়েছেন ২৩ বছর বয়সি দ্যুতি। ২০০ মিটারে ফিরেছেন ব্রোঞ্জ নিয়ে। জুনে বিশ্ববিদ্যালয় গেমসে নামবেন বলে হায়দ্রাবাদে প্রস্তুতি চালাচ্ছেন দ্যুতি। ওড়িশার জাজপুরে তার গ্রামেই সেই তরুণীর বাড়ি। ভুবনেশ্বরের একটি কলেজে স্নাতক দ্বিতীয় বর্ষে পড়ছে সে।

কেন এত দিন এই সম্পর্ক চেপে ছিলেন জিজ্ঞেস করলে জানান যে, ভয় পেয়েছিলন তিনি। তা ছাড়া মেয়েটি তখনও প্রাপ্তবয়স্ক হয়নি। গত বছর সেপ্টেম্বরে সুপ্রিম কোর্ট রায় দেয়, সমলিঙ্গের সম্পর্ক কোনও অপরাধ নয়।

তার পরেই ঘনিষ্ঠ বন্ধুদের এই সম্পর্কের কথা জানান তিনি। এই সম্পর্ক ঘিরে তাঁর পরিবারে অশান্তি হয়। তার দিদি এই সম্পর্কের বিরোধী। বাবা-মা তার পাশে থাকলেও তার নিজের তৈরি করা বাড়িতেই তার দিদি ঢুকতে দিতে চাইছেন না। কিন্তু তিনি এই সম্পর্ক ভাঙবেন না স্পষ্ট জানিয়েছেন।

বাংলার অ্যাথলিট পিঙ্কি প্রামাণিক এর আগে নিজের সম্পর্ক জানাতে চাননি। তাই পরবর্তী কালে তাঁকে ব্ল্যাকমেল করে বিপদে ফেলা হয়েছিল। তাদের সম্পর্ককে যাতে এরকম সমস্যার সম্মুখিন না হতে হয় তাই তার এই সম্পর্কের কথা গোটা দেশকে জানিয়েছেন।

সম্পর্কের কথা জানিয়ে দ্যুতি মাঠে কোনও সমস্যায় পড়তে পারে কি না, তা জানতে চাওয়া হলে ক্রীড়া-অধিকার কর্মী পয়োষ্ণী মিত্র জানিয়ে দিয়েছেন, যে এমন সমস্যার কোনো প্রশ্নই নেই।