Date : 2019-07-21

কাল নেত্র অমাবস্যায় চোখ খুলবেন প্রভু, ধনলাভ করতে ৭টি কাজ করুন

ওয়েব ডেস্ক: স্নানযাত্রার পর দীর্ঘ ১৫ দিন জ্বরে কাবু হয়ে থাকেন জগন্নাথ দেব। এরই মধ্যে থাকে অম্বুবাচী তিথি। রথযাত্রার আগে আগামীকাল নেত্রর অমাবস্যা। আর এই দিনেই নাকি চোখ খোলেন জগন্নাথ দেব। জ্বর সেরে উঠে বসেন। শুরু হয় রথযাত্রার প্রস্তুতি। তাই কালকের অমবস্যা যোগ প্রভু জগন্নাথের জেগে ওঠার মাহেন্দ্রক্ষণ।

জগৎপালকের মধ্যেই স্বয়ং লক্ষ্মীর বাস, তাই তাঁর জেগে ওঠায় আপনার সমৃদ্ধি কে আটকায়? সুখ সমৃদ্ধি নিয়ে আনন্দে গোল গোল দুচোখ মেলে, হাসি মুখে দু হাত বাড়িয়ে কাছে ডাকেন ভক্তদের। ভক্তরাও যেন তাঁর ডাকে সাড়া দিয়ে ছুটে যান। তাঁর জেগে ওঠার দিনে কৃপাপাত্র হয়ে উঠতে এই ৭টি কাজ অবশ্যই করা প্রয়োজন প্রত্যেক ভক্তের।

১. তিনি জেগে ওঠেন তাই তাঁকে অন্ধকারে না রেখে সন্ধ্যার পর তুলসী গাছে ১০৮টি প্রদীপ দিয়ে প্রদক্ষিণ করুন। প্রেমভাবে আকর্ষিত প্রভু জগন্নাথ আপনার সব বাধা দূর করে দেবেন।

২. জন্ম ছকে অনেকেই চন্দ্রের দোষ যুক্ত হন। এর ফলে মানসিক হতাশায় ভোগেন। প্রভু জগন্নাথ পরম আনন্দময়। তাঁর অপার আনন্দ লাভ করতে এই দিনে কোন দুগ্ধবতী গাইকে আতপ চাল ও দই খাওয়ান। ঈশ্বর সমস্ত জীবের মধ্যেই বাস করেন। একটি জীব তৃপ্ত হলে আপনি অবশ্যই হতাশা মুক্ত হবেন।

৩.পুরাণে বর্ণিত আছে শঙ্খ শ্রী বিষ্ণুর প্রিয় বস্তু। তিনি সৃষ্টিকর্তা। শঙ্খকে পৃথিবীতে জীবনের প্রথম আধার হিসাবে মনে করা হয় হিন্দু শাস্ত্রে, কারণ বিজ্ঞান বলে পৃথিবীতে প্রথম জীবের হৃদস্পন্দন হয়েছিল জলেই। তাই জলেই বাস প্রভু জগন্নাথের। তিনি সমস্ত জীবশক্তির ও সৃষ্টির আধার। তাই এই দিনে তাঁকে সন্তুষ্ট করতে ঘরে দক্ষিণাবর্ত শঙ্খে একটু কেশর ও চাল রেখে তাঁর আরাধনা করুন। এতে শ্রী বৃদ্ধি হবে আপনার।

৪. পৃথিবীতে জীবকে সন্তুষ্ট রাখলেই ঈশ্বর আপনার উপর সন্তুষ্ট হবেন। তাই এদিন জীবজন্তু কীট-পতঙ্গ, পশু,পাখিকে খাওয়ান, ঈশ্বরের পরম প্রীতি লাভ করবেন।

৫. এই তিথি পিতৃপুরুষদের তিল, জল দানের জন্য উত্তম তিথি, এই দিনে পিণ্ডদান করা অত্যন্ত শুভ।

৬. এদিন কোন শনি মন্দিরে অথবা যেকোন মন্দিরে দুঃস্থ মানুষকে খেতে দিন। তাঁর আশীর্বাদে আপনার জীবনে অন্নাভাব হবে না।

৭. মন্ত্র মন ও শরীরকে ত্রাণ করে। মনের কষ্ঠ মিটলে শরীরের যন্ত্রণা অনেকটাই সহনীয় হয়। তাই প্রাচীন হিন্দু শাস্ত্রে মনকে শরীরের পীড়া থেকে ত্রাণ করতে মন্ত্র জপের পরামর্শ দেওয়া হত। এই দিনে ১০০৮ মৃত্যুঞ্জয় মন্ত্র জপ করুন, আপনি শারীরিক অসুস্থতা সত্ত্বেও দ্রুত মানসিক ভাবে শক্তিশালী হবেন।