Date : 2019-11-18

উদ্বোধনের বাকি ৪ দিন,জঙ্গি ঘাঁটির অস্তিত্ব ধরা পড়ল করতারপুর করিডোরের কাছে….

ওয়েব ডেস্ক: গুরু নানকের জন্মদিন উপলক্ষ্যে আগামী ৯ নভেম্বর থেকে খুলে দেওয়া হবে করতারপুর করিডোর। জন্মদিন উপলক্ষ্যে এই দেশ থেকে সেখানে অন্তত সাড়ে ৫০০ পূর্ণার্থীর যাওয়ার কথা। তার আগেই নারওয়াল জেলায় জঙ্গি ঘাঁটি নজরে এলো গোয়েন্দাদের। করতারপুর গুরুদ্বার দরবার সাহিবের থেকে কিছুটা দূরেই সক্রিয় জঙ্গি কার্যকলাপ নজরে এসেছে গোয়েন্দা দফতরের। বিএসএফ সূত্রে খবর, নারওয়াল জেলার মুরিদকে, শাকারগড় ও নারওয়ালে জঙ্গি প্রশিক্ষণ নিচ্ছে বেশ কিছু পুরুষ ও মহিলা জঙ্গি। ওইসব জায়গায় ডেরা বেঁধে রয়েছে তারা।

রাজ্যের পরিচয় হারিয়ে জম্মু-কাশ্মীর ও লাদাখ এখন পৃথক কেন্দ্রশাসিত অঞ্চল

গুরুনানকের জন্মদিন উপলক্ষ্যে করতারপুর করিডোর সাজিয়ে ফেলেছে পাকিস্তান। পাক প্রধানমন্ত্রী ইমরান খান করতারপুর গুরুদ্বারের ছবি পোস্ট করেন তার টুইট্যার একাউন্টে। ৯ নভেম্বর করতারপুর করিডোর উদ্বোধনের কথা প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদী। তার আগেই সক্রিয় জঙ্গি কার্যকলাপের খবর আসায় সেই অনুষ্ঠানের উপর প্রভাব পড়তে পারে বলে মনে করা হচ্ছে। গত ২৪ অক্টোবর একটি চুক্তি করা হয় ভারত ও পাকিস্তানের মধ্যে।

জঙ্গিদের গুলিতে কাশ্মীরে মৃত ৫ বাঙালি শ্রমিক, মৃত্যুর সঙ্গে লড়াই করে হেরে গেল আরও ১

সেখানে বলা হয়েছে, পঞ্জাবের গুরুদাসপুরের ডেরা বাবা নানক সৌধ থেকে করতারপুরের গুরুদ্বার দরবার সাহিবকে সড়ক পথে জুড়ে দেওয়া হবে। সেই মতোই কাজ শেষ হয়েছে এতদিনে। গুরু নানকের ৫৫০তম জন্মদিন উপলক্ষে আগামী ৯ নভেম্বরে করতারপুরে যাচ্ছেন ৫৭৫ পুণ্যার্থী। ওই দলে রয়েছেন প্রাক্তন প্রধানমন্ত্রী মনমোহন সিং, কেন্দ্রীয় মন্ত্রী হরদীপ পুরী, হরসিমরত কৌর, পঞ্জাবের মুখ্যমন্ত্রী অমরিন্দার সিং প্রমুখ। তার আগে জঙ্গি কার্যকলাপের ঘটনার গোয়েন্দা রিপোর্টে নিরাপত্তা নিয়ে রীতিমতো চিন্তায় পড়েছে প্রশাসন।