Date : 2019-12-15

কাশি নিয়ে ডাক্তারের কাছে, গলা, নাক থেকে বেরোল জোঁক

ওয়েব ডেস্ক :দীর্ঘসময় ধরে কাশিতে ভুগছিলেন বছর ষাটেকের এক ব্যাক্তি।কাশির পরিমাণ বাড়তে থাকায় অবশেষে একজন ডাক্তারকে দেখানোর সিদ্ধান্ত নেন তিনি।ঘটনাটি ঘটেছে চিনে সিংজুয়ান প্রদেশে। তবে সামান্য কাশির পেছনে যে এক বড় ভয়ঙ্কর কারণ রয়েছে তিনি স্বপ্নেও ভাবেননি।ডাক্তারের কাছে যাওয়ার পর রোগীর কথা শুনে তাকি বেশ কিছু পরীক্ষা করানোর সিদ্ধান্ত নেয় ডাক্তার।প্রথমে তার সিটি স্ক্যান করানো হয়। কিন্তু সেখানে আশানুরুপ সিদ্ধান্ত না হওয়ায় তার ব্রঙ্কোস্কপি করার সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়। বঙ্ক্রোস্কপিতে জানা যায় তার গলার এবং নাকের ভেতরে রয়েছে ২ টি জোঁক।যা প্রতিনিয়ত তার কাশি ও রক্ত ক্ষরনের কারণ হয়ে দাঁড়িয়েছিল।সেই জোঁক বার করার ক্ষেত্রে প্রাথমিকভাবে তাকে অ্যানেস্থেশিয়া দেওয়া হয়।তার পর সেই জোঁক ২ টিকে চিমটে দিয়ে বের করে আনা হয় নাক এবং গলা থেকে।

পরে ডাক্তারের কাছ থেকে জানা যায় ঝর্ণার জল পান করার ফলেই এই সমস্যার সৃষ্টি হয়েছে ওই বৃদ্ধর।ঝর্ণার জলে জোঁকের উপস্থিতি থাকার ফলে তা পান করার সময় তা রোগীর ভিতরে প্রবেশ করেছে বলে মনে করছেন ডাক্তারেরা।তবে এখনই বিষয়টি নজরে না আসলে ভবিষ্যতে তা রোগীর রক্তে প্রবেশ করে বড়সড় দুর্ঘটনা ঘটতে পারত বলে মনে করছেন ডাক্তারেরা।