Date : 2020-12-05

ভালোবাসার কাছে হার মানল মৃত্যুভয়! করোনা ভুলে চিনা প্রেমিকাকেই বিয়ে যুবকের

ওয়েব ডেস্ক: ভালোবাসা মৃত্যুকেও ভয় পায় না, শুধু কথায় নয় কাজেও সেই প্রমাণ দিয়েছেন অনেকেই। করোনা ভাইরাসের আতঙ্কে যখন সারা বিশ্ব চিনকে প্রায় একঘরে করেছে ,ভালোবাসার কাছ থেকে কিন্তু খালি হাতে ফিরতে হয়নি। করোনা ভাইরাসের দাপটে যখন মৃত্যুপুরীতে পরিনত হয়েছে চিন তখন নিজের চিনা প্রেমিকার সঙ্গে চারহাত এক করে নিলেন পূর্ব মেদিনীপুরের বাসিন্দা পিন্টু জানা। চিনের বাসিন্দা অ্যাঞ্জেল আর পিন্টুর প্রেমের কাহিনী এখন সবার মুখে মুখে ঘুরছে। পারিবারিক ব্যবসা সূত্রে পূর্ব মেদিনীপুরের জানা পরিবারের চিনের গোয়াং প্রদেশের সঙ্গে দূরত্ব কমেছিল। ছোট মামার সঙ্গে গারমেন্টস-এর ব্যবসা শুরু করেন পিন্টু।

ব্যবসার উন্নতির জন্য দেশ ছেড়ে চিনের উদ্দেশে পারি দিতে হয়েছিল তাকে। সেখানেই গোয়াং প্রদেশের বাসিন্দা অ্যাঞ্জেলের সঙ্গে আলাপ হয় তার। চার চোখের পরিচয় এখন চার হাত এক হওয়ার সম্পর্কে বদলে গিয়েছে। প্রণয় থেকে পরিনতি পেয়েছে তাদের সম্পর্ক। বেশ কিছুদিন আগেই তাদের বিবাহের দিন ঠিক হয়, কিন্তু পথের কাঁটা হয়ে দাঁড়িয়েছে করোনা ভাইরাসের আতঙ্কে।

মর্মান্তিক দুর্ঘটনা! শাড়ি পরে সরস্বতী পুজোর অঞ্জলি দিতে গিয়ে পুড়ে মৃত্যু খুদের

চলতি মাসের চার তারিখ হিন্দু মতে বিবাহ সূত্রে আবদ্ধ হওয়ার আগেই তাল কেটে যায়। সব প্রস্তুতি ভেস্তে যায় করোনা ভাইরাসের থাবায়। চিন্তার ভাঁজ পড়ে দুই পরিবারের কপালেই। সব বাধা অতিক্রম করে শেষ পর্যন্ত নিজেদের সিদ্ধান্তে অটল থাকে দুই পরিবার। শেষে ঠিক হয়, নির্দিষ্ট দিনেই হবে বিয়ে।

এদিকে চিনে মহামারী আকার নিয়েছে নোভেল করোনাভাইরাস। কোনওমতে পাত্র ও পাত্রী ভিসা নিয়ে ভারতে চলে আসে। কিন্তু আটকে পড়ে কনের পরিবার। সেই পরিস্থিতির মধ্যেই মঙ্গলবার চার হাত এক হল অ্যাঞ্জেল ও পিন্টুর। একদিকে যখন করোনা ভাইরাসের আতঙ্কে প্রমাদ গুনছে গোটা দেশ। তখন পিন্টু আর অ্যাঞ্জেলের ভালোবাসা মাথা উঁচু করে দাঁড়ালো। চরম ভয়াবহতার মাঝেও ভালোবাসাই যে একমাত্র সাহস দেখাতে পারে তা প্রমাণ করে দিল পিন্টু আর অ্যাঞ্জেলের প্রেম।