Date : 2021-10-22

মুঠো ফোনের দৌলতে কিংবদন্তি পরিচালক সত্যজিত্ রায়কে ট্রিবিউট দিল খুদেরা

সত্যজিৎ রায় নেই কিন্তু আছে তার খুদে ভক্তরা। সাদাকালো অপু-দুর্গার পর লাইট-ক্যামেরা-আকশন ছাড়াই রঙ্গিন পর্দায় ফুটে উঠল তাঁর পরিচালিত অমরচরিত্রগুলি। আর এভাবেই শততম বর্ষে সত্যজিৎ রায়কে সম্মান জানালও একদল খুদে।

অতিমারি আবহে গৃহবন্দি শৈশব। প্রায় বছর দেড়েক ধরে ঘরের চার দেওয়ালেই কাটছে ওদের জীবন। শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান বন্ধ তাই অনলাইনেই চলছে পঠনপাঠন। দিনের বেশির ভাগ সময় কাটছে মুঠো ফোনে। কখনও অনলাইন ক্লাস করার জন্য আবার কখনও বা গেম খেলার সঙ্গী হয়ে উঠছে এই মোবাইল। তবে এই মুঠো ফোনের দৌলতে কিংবদন্তি পরিচালক সত্যজিত্ রায়কে ট্রিবিউট দিল খুদেরা।

সত্যজিৎ রায়ের পরিচালিত সিনেমার অপু, দুর্গা, মুকুল, ফেলুদা চরিত্রগুলোকে নিজেদের মত করে তুলে ধরল একদল খুদে। বাড়ির চার দেওয়ালেই নিজেদের মত করে তারা ফুটিয়ে তুলেছে অপু, দূর্গা, মুকুল ও ফেলুদাকে। মোবাইলের ক্যামেরার সাহায্যে নিজের নিজের বাড়ি বসেই এই চরিত্রগুলোকে ফুটিয়ে তুলেছে এই খুদে শিল্পিরা।

কবে স্কুল খুলবে জানে না ওরা। করোনার কোপ সহপাঠীদের থেকে দূরত্ব বাড়িয়েছে ওদের। কিন্তু এক স্বেচ্ছাসেবি সংস্থার সাহায্যে সত্যজিত্ রায়ে শততম জন্মবার্ষিকিতে অপু, মুকুল ও ফেলুদারা ভিন্ন চরিত্র হলেও খুদেদের অভিনয়ের দৌলতে তারা এক বিন্দুতে মিলেছে৤ আর এখানেই হয়ত গৃহবন্দি শৈশবের খানিক আনন্দ খুঁজে পাওয়া।