Date : 2022-05-27

ইউক্রেন নিয়ে ঘনাচ্ছে তৃতীয় বিশ্বযুদ্ধের মেঘ

তথাগত চ্যাটার্জি, নিউজ ডেস্ক : উক্রেন নিয়ে রাশিয়া ও আমেরিকার সম্পর্ক প্রায় তলানিতে এসে ঠেকেছে। ফোনে সম্প্রতি রুশ প্রেসিডেন্ট ভ্লাদিমির পুতিনকে হুঁশিয়ারি দিয়েছেন মার্কিন প্রেসিডেন্ট জো বাইডেন। তবে এর মধ্যেই ইউক্রেনে সৈন্য মোতায়েন করে ফেলেছে রাশিয়া। এই ঘটনা মোড় নিচ্ছে তৃতীয় বিশ্বযুদ্ধের। জানা গিয়েছে ফোনে প্রায় এক ঘণ্টা ধরে কথা বললেও বরফ গলেনি দু-দেশের সম্পর্কের মধ্যে। রাশিয়া ইউক্রেন নিয়ে পদক্ষেপ করলে তার ফল হিসেবে যুদ্ধ ঘোষণা করা হবে বলে জানিয়েছেন তিনি। তবে হুমকি সত্বেও রাশিয়াকে টলানো যাবে না বলে মনে করছেন বিশেষজ্ঞদের একাংশ। ন্যাটো বাহিনীকে পাল্টা জবাব দিতে ইউক্রনকে তিন দিক থেকে রুশ সেনা এগোচ্ছে বলে জানা গিয়েছে।

দক্ষিণ প্রদেশ থেকে ক্রিমিয়াক দিকে এগোচ্ছে রুশ সেনা। তবে রাশিয়া ও আমেরিকা নিয়ে যুদ্ধের পরিস্থিতি তৈরি হলেও মাথা ঠান্ডা রাখছে ইউক্রেন। উত্তপ্ত পরিস্থিতি হলেও জনগণকে শান্ত রাখতে আর্জি জানানো হয়েছে। সে দেশের প্রশাসন জানিয়েছে যদিও বা যুদ্ধের আবহ তৈরি হয়, তাহলেও ইউক্রেনের রাজধানী থেকে প্রায় ৩০ লক্ষ নাগরিককে সরিয়ে নিয়ে যাওয়ার মতো পরিকাঠামো তৈরি রয়েছে দেশে। রাজনৈতিক বিশারদদের একাংশের মতে, চিনে শীতের অলিম্পিক শেষ হলেই ইউক্রেন আক্রমণ করবে রাশিয়া৤ এদিকে পোল্যান্ডেও সেনা মোতায়েন করার কথা ঘোষণা করেছেন মার্কিন প্রেসিডেন্ট জো বাইডেন। রাশিয়ার আগ্রাসনের যোগ্য জবাব দিতেই আমেরিকা সব রকমের প্রস্তুতি নিয়ে রেখেছে। সব মিলিয়ে তৃতীয় বিশ্বযুদ্ধের মেঘ এই দুই দেশের সংঘাতের ফলে দেখা দিয়েছে, তা বলাই যায়।