Date : 2022-05-27

অবশেষে ইমরানের যবনিকা পতন

পৌষালী সেনগুপ্ত, নিউজ ডেস্কঃ বেশ কয়েকদিন ধরে চলতে থাকা নাটকের অবশেষে সমাপতন। শনিবার মধ্যরাতে পাকিস্তানে পতন হল ইমরান খানের সরকারের।পাক সংসদে ১৭৪ জন সাংসদ ইমরান খানের বিরুদ্ধে আনা অনাস্থা প্রস্তাবের পক্ষে ভোট দিলেন। পূর্বসূরীদের মতোই পাঁচ বছরের মেয়াদ পূর্ণ করতে পারলেন না প্রাক্তন পাক ক্রিকেট অধিনায়ক। যতটা মর্যাদার সঙ্গে ইমরান ক্রিকেট মাঠ ছেড়েছিলেন, শনিবার ঠিক ততটাই অসম্মানের সঙ্গে তাঁকে পাক প্রধানমন্ত্রীর চেয়ার ছাড়তে হয়েছে। রাতের অন্ধকারে ছাড়তে হয়েছে প্রধানমন্ত্রীর বাসভবন ও রাজধানীও। সংসদে আস্থা ভোট এড়াতে বহু ব্যবস্থা নিয়েছিলেন ইমরান। কিন্তু শেষে সেনাবাহিনী, আদালতের চাপে ইমরানকে হার মানতে হল।ইমরানকে অনাস্থা ভোটে বাধ্যত করতে মধ্য,রাতেই বসে যায় সুপ্রিম কোর্ট। রাতে দপ্তর খোলে সেদেশের নির্বাচন কমিশনও।পাক সংসদে দাঁড়িয়ে পাক মুসলিম লিগ, পাকিস্তান পিপলস পার্টি সহ ইমরানের বিরোধী সাংসদরা অনাস্থা ভোটের দাবিতে লাগাতার অবস্থান চালিয়ে যেতে থাকে।

আদালত সূত্রে জনা যায় রাত ১২ টার মধ্যে অনাস্থা প্রস্তাব না করা হলে গ্রেফতার করা হবে ইমরানকে।সংসদের বাইরে নিয়ে আসা হয় প্রিজন ভ্যান। সুপ্রিম কোর্টের সামনে নেমে যায় সেনাবাহিনী। পরিস্থিতি তাঁর সম্পূর্ণ হাতের বাইরে চলে যাচ্ছে দেখে ইমরান সংসদের স্পিকার ও ডেপুটি স্পিকারকে ডেকে পদত্যাবগের নির্দেশ দেন। রাত ১২টার আগে বসে সংসদ।অনাস্থা ভোটের আগে স্পিকার ও ডেপুটি স্পিকার পদত্যাদগ করেন।ভোটের আগেই ইমরানের দল ‘তেহরিক-এ-ইনসাফ’-এর সাংসদরা সংসদ ভবন ছাড়েন। ১২টা বাজার কয়েক মিনিট বাদে ভোটাভুটি শুরু হয়। অনাস্থা ভোটের ফল কী হচ্ছে তা জানাই ছিল ইমরানের। ফলে, ফলের জন্যর অপেক্ষা না করে তিনি প্রধানমন্ত্রীর বাসভবন ছেড়ে বেরিয়ে যান। কিছুক্ষণের মধ্যে তাঁকে হেলিকপ্টারে ইসলামাবাদ ছেড়ে চলে যেতে দেখা যায়। সংসদে ইমরান পরাজিত হওয়ার পর ভাষণ দেন দুই বিরোধী নেতা শাহবাজ শরিফ ও বিলাওয়াল ভুট্টো। সোমবার পাকিস্তানের নতুন প্রধানমন্ত্রী শপথ নেবেন। এবার স্বভাবতই প্রশ্ন উঠতে শুরু করেছে পরবর্তী প্রধানমন্ত্রী কে। তাঁর দিকেই তাকিয়ে আছে গোটা আন্তর্জাতিক মহল।