Date : 2022-10-01

মূল্যবৃদ্ধির আঁচে পুড়ছে হালখাতাও, হালখাতার হালহকিকত জানতে বড়বাজারে ঢুঁ

শাহিনা ইয়াসমিন, সাংবাদিকঃ বাংলা নববর্ষের অনন্য ঐতিহ্য হালখাতা। হালখাতা আবহমান বাংলার চিরায়ত সংস্কৃতি। পুরনো হিসাবের খাতা বন্ধ ও নতুন হিসাবের খাতা খোলার আনন্দ-আয়োজন, ও তার সঙ্গে আপ্যায়ন-আনুষ্ঠানিকতার নামই হালখাতা। মূল্যবৃদ্ধির আঁচে পুড়ছে সেই হালখাতাও।


বাংলা বছরের প্রথম দিনটাকে হালখাতা হিসেবে পালন করেন ব্যবসায়ীরা। আগের বছরের দেনা-পাওনার হিসেব মিটিয়ে এদিন নতুন করে হিসেবের খাতা খোলেন তাঁরা। এই উপলক্ষ্যে নববর্ষের প্রথমদিনে দোকানে আসা ক্রেতাদের মিষ্টিমুখও করানো হয়। বাংলা নববর্ষের সঙ্গে অঙ্গাঙ্গী ভাবে জড়িয়ে হালখাতা উদযাপন। হালখাতা বাঙালি ঐতিহ্য ও ইতিহাসের একটি অংশ। দুবছর লকডাউনের জেরে হালখাতা পালনের জৌলুস খানিকটা কমে গিয়েছিল। তবে এবছর মূল্যবৃদ্ধির প্রভাব থেকে বাদ পড়েনি হালখাতাও। বড়বাজারে ব্যবসায়ীদের একাংশের দাবি পেট্রোল-ডিজেলের দাম বাড়ার কারণে হালখাতার দাম বেড়েছে। আবার কিছু ব্যবসায়ীরা জানান কাগজের দাম ১০০ টাকা প্রতি কেজি বেড়ে যাওয়ায় হালখাতারও দাম বেড়েছে। জানুয়ারি ও ফেব্রুয়ারি মাসে কাগজের দাম ছিল ৭৬ থেকে ৭৮ টাকা প্রতি কেজি। দেড়মাসে কাগজের দাম আকাশছোঁয়া।


হালখাতার মধ্যেও এসেছে ভিন্নতা। ছোট-বড় বিভিন্ন রকমের হালখাতা সারি সারি সাজানো দোকানে। মানুষের চাহিদা অনুযায়ী বিভিন্ন হালখাতা তৈরি হয়েছে বলে জানান ব্যবসায়ীরা। বর্তমানে কম্পিউটারেও হিসেব নিকেশ তুলে রাখা হয়। তবে যতই আসুক আধুনিকতা হাতেকলমে কাজের ক্ষেত্রে হালখাতার চাহিদা এখনও রয়েছে বলে জানান বিক্রেতারা।