Date : 2022-10-05

যুদ্ধ পরিস্থিতির মধ্যে ইউক্রেনে খুলছে ভারতীয় দূতাবাস, জানালো ইউক্রেনের বিদেশ মন্ত্রক

ঋক পুরকায়স্থ, নিউজ ডেস্ক : যুদ্ধের আবহের মধ্যে ইউক্রেনে ফের খুলতে চলেছে ভারতীয় দূতাবাস। ১৭ মে থেকে কিয়েভের দূতাবাসে ফের ফের কর্মীরা ফের আগের মতো কাজে যাবেন। শুক্রবার একটি বিবৃতিতে এমনটাই জানিয়েছেন ইউক্রেনের বিদেশমন্ত্রক। গত ২৪ ফেব্রুয়ারি ইউক্রেনে হামলা শুরু করে রাশিয়া। ইউক্রেনের প্রেসিডেন্ট জেলেনস্কির নেতৃত্বে পাল্টা আক্রমন করে ইউক্রেনীয় সেনা। তারপরই ১৩ই মার্চ কিয়েভ থেকে ওই দূতাবাসটি সরিয়ে নিয়ে যাওয়া হয় পোল্যান্ডের ওয়ারশ শহরে। যুদ্ধ বিদ্ধস্ত ওই দেশটি থেকে উদ্ধার করা হয় হাজার হাজার ভারতীয় পড়ুয়াকে। এই উদ্ধার কাজে নয়া দিল্লিকে সাহায্য করে কিয়েভ ও মস্কো। দুই দেশকেই লড়াই থামিয়ে আলোচনার পথে আনার কথা বলেছিল ভারতের প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদী। এইরকম পরিস্থিতিতে কিয়েভে ভারতীয় দূতাবাস খোলার কথা শুনেই মনে হচ্ছে পরিস্থিতি কিছুটা হলেও স্বাভাবিক হয়েছে। এমনটাই মনে করছেন বিশেষজ্ঞরা।

রাশিয়ার সঙ্গে যুদ্ধ থামাতে একাধিকবার ভারতের সাহায্য চেয়েছে ইউক্রেন। রাশিয়া ইউক্রেনের যুদ্ধ থামাতে গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা নিতে পারে ভারত। এমনটাই মনে করছেন ইউক্রেনের বিদেশমন্ত্রী দিমিত্র কুলেবা। মার্চ মাসের একটি স্বাক্ষাত্কারে তিনি জানিয়েছেন, ভারতের প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদী রাশিয়া এবং ইউক্রেনের মধ্য মধ্যস্ততা করতে চাইলে স্বাগত জানাবে ইউক্রেন। এর আগেও বিভিন্ন ভাবে ভারতকে তাদের পাশে দাঁড়াতে আর্জি জানিয়েছে ইউক্রেন। রুশ হামলার সম্মুখীন হয়েও রাশিয়ার ৩০ টি শহর ও গ্রামের দখল নিয়েছে ইউক্রেন। তারপরই হানাদার বাহিনীর হাত থেকে উদ্ধার হওয়া এলাকারগুলির ছবি সামনে এনেছে। ইউক্রেনের বুচা শহরে যুদ্ধের ভয়াবহতার ছবি দেখে কেঁপে ওঠে সকলে। তবে ভারতীয় দূতাবাস খোলা দেখে মনে হচ্ছে যে ইউক্রেনের যুদ্ধ পরিস্থিতি কিছুটা হলেও স্বাভাবিক হয়েছে।