Date : 2022-08-10

গজলের দুনিয়ায় মন ভার। কোনওদিন আর কণ্ঠ দেবে না ভূপিন্দার সিং। শিল্পীর মৃত্যুতে শোকস্তব্ধ সঙ্গীত জগত।

রাকেশ নস্কর, সাংবাদিক : মেরি আওয়াজ হি পেহচান হ্যায়। সত্যিই এই মাপের শিল্পীর কণ্ঠই তাঁর পরিচয়। প্রয়াত গজলের নক্ষত্র ভূপিন্দার সিং। সোমবার রাতে তাঁর মৃত্যুর খবরে শোকস্তব্ধ সঙ্গীত জগত। বহুদিন ধরে কোলন ক্যান্সারে ভূগছিলেন তিনি। তাঁর করোনা আক্রান্ত হওয়ায় শারীরিক সমস্যা বেড়ে ওঠে ।সোমবার রাতে শেষ নিশ্বাস ত্যাগ করেন ৮২ বছর বয়সী এই সঙ্গীতশিল্পী । 

বলিউডে প্লেব্যাক করে একের পর এক গান গেয়ে শ্রোতাদের মন জয় করে নিয়েছিল। দো দিওয়ানে শেহের ম্যায়, মেরি আওয়াজ হি পেহচান হ্যায়, থোড়ি সি জমিন, এক আকেলা এক শেহের ম্যায় থেকে শুরু বাংলা ত্রিয়ী ছবির গান কবে যে কোথায়। ফুরফুরে মেজাজের কণ্ঠে সঙ্গীতশিল্পী ভূপিন্দার সিংয়ের গান মানুষ মনে অনুভূতি জাগিয়েছে।

সোমবার রাতে মুম্বইয়ের ওসিওয়াড়া শ্মশানেই তাঁর শেষকৃত্য সম্পন্ন হয়। স্ত্রী মিতালি সং জানিয়েছেন, বেশ কিছু দিন ধরেই ইউরিনারি সমস্যা সহ একাধিক স্বাস্থ্য জটিলতায় ভুগছিলেন। ভূপিন্দার সিংয়ের প্রয়াণে শোকপ্রকাশ করেছেন প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদী, সঙ্গীতশিল্পী পঙ্কজ উদাস, বিশাল দাদলানি থেকে শুরু করে অভিনেতা অজয় দেবগন। 

পঞ্জাবের অমৃতসরে এক পরিবারে ৬ ফেব্রুয়ারি,১৯৪০ সালে জন্মগ্রহন করে ভূপিন্দার সিং। ছোট বয়স থেকেই গিটার ও বেহালার বাজানোর প্রতি আগ্রহ ছিল তাঁর। ।যদিও পরিবারের সম্মতি না থাকার সত্ত্বেও সঙ্গীতের পৃথিবীকে বেছে নিয়েছিলেন ভূপিন্দার সিং। রেডিও বহুদিন কাজ করার পর পরববর্তীকালে মদন মহনের হাত ধরে গান গাওয়ার সুযোগ পান ভূপিন্দার সিং। এর পর একের গানের সরলিপি তৈরি করেছিল ভূপিন্দার সিং। তাঁর প্রয়াণে আর প্লাস নিউজের শ্রদ্ধার্ঘ্য।