Date : 2022-08-11

ঘনঘন কফি খাচ্ছেন? বিপদ ডেকে আনছেন না তো?

রিমা দত্ত, নিউজ ডেস্কঃ কফিতে থাকে ক্যাফিন নামক একটি উপাদান। এই উপাদানটি, সাময়িক ভাবে স্নায়ুকে সতেজ করতে বেশ কার্যকর। তাই কফি খেলেই অনেক সময় সতেজ লাগে। কিন্তু এটি ছাড়াও কফির একাধিক বৈশিষ্ট্য আছে। কফি অ্যাসিডিক অর্থাৎ অম্ল এবং ডাইইউরেটিক বা মূত্রবর্ধক। সহজ করে বলতে গেলে, কফি এক দিকে যেমন উত্তেজনা বাড়িয়ে দিতে পারে, তেমনই শরীরের কিছু অত্যাবশ্যক সংস্থানকে কমিয়েই দিতে পারে।

অনেকেই দিন শুরু করেন কফি কাপ হাতে নিয়ে। অনেকে আবার দীর্ঘক্ষণ কাজ করার জন্য বার বার কফি খান। অন্য দিকে অনেকেরই কফি খেলে বিভিন্ন ধরনের সমস্যা দেখা দেয়। কিন্তু কেন এমন হয়?বিশেষজ্ঞদের মতে, যাঁদের মানসিক দুশ্চিন্তার সমস্যা রয়েছে তাঁদের ক্ষেত্রে কফির উপর নির্ভরতা বৃহত্তর সমস্যা ডেকে আনতে পারে। এই ধরনের সমস্যায় ভোগা মানুষদের ক্ষেত্রে, কফির প্রভাবে অ্যাড্রিনালিন হরমোনের ক্ষরণ বেড়ে যেতে পারে, যা সাময়িক ভাবে উত্তেজনার অনুভূতি তৈরি করে। বাড়িয়ে দেয় করটিসল হরমোনের মাত্রাও। কিন্তু যেই মুহূর্তে প্রভাব ফুরিয়ে আসে তখনই দেখা দেয় সমস্যা। দীর্ঘ সময় ধরে নিস্তেজ হয়ে যেতে পারেন সংশ্লিষ্ট ব্যক্তি। যা ‘ক্রনিক স্ট্রেস’ বা দীর্ঘস্থায়ী মানসিক চাপ তৈরি করতে পারে। ফলে মানসিক চাপ থাকলে কফি খেতে পারবেন কি না তা বিশেষজ্ঞদের জিজ্ঞেস করে নেওয়াই ভাল।