Date : 2022-12-03

গাছ যখন আমানত

সুপ্রিয় বসাক ও সুজয় দাস, সাংবাদিক ঃ এক কেজি চন্দন কাঠের বর্তমান বাজার দর প্রায় ৩ হাজার ৫০০ টাকা। এবার ভাবুন একটা গোটা চন্দন গাছের মালিক আপনি। তাই একটা চন্দন গাছ বেঁচে যত টাকা উপার্জন হয় তা দিয়ে একজন সাধারন পরিবার অনায়াশেই তাঁর কন্যা সন্তানের বিয়ের খরচ জোগাতে পাড়েন। এই হিসাবের কথা আপনি কি কখনও ভেবেছেন ? আপনি না ভাবলেও ভেবেছেন ধূপগুড়ির দেবদুলাল ঘোষ। তাও আবার নিজের মেয়ের জন্মদিনে।

তাই আজ যাদের বয়স ১-১০ বছর, ১৫ -২০ বছর পর সেই মেয়েদের বিয়ের জন্য আর্থিক সংস্থানের পরিকল্পনায় প্রায় চার শতাধিক পরিবারকে বহু মুল্যবান চন্দন এবং অগ্রু গাছের চারা বিতরন করলেন দেব দুলাল ঘোষ এবং তার পরিবার।

ছোট্ট মেয়ে আদ্যা ঘোষের বয়স ২ বছর পূর্ন হওয়াতে, তাঁর জন্মদিন স্মরনীয় করে রাখতে এবং ছোটো কন্যা সন্তানদের বাবা মায়েদের মেয়ের ভবিষ্যৎ পরিকল্পনায় এই উদ্যোগ বলে জানিয়েছেন দেব দুলাল বাবু।তার কথায় এদিন ধূপগুড়ি পুরসভার ১১ নং ওয়ার্ডে এই গাছ বিলি করা হয়।মূলত যে সমস্ত কন্যা সন্তানদের বয়স ১-১০ বছরের মধ্যে তাদের ভবিষ্যত পরিকল্পনায় বিয়ে বা উচ্চ শিক্ষায় আর্থিক সংস্থানের কাজ করবে এই গাছ। প্রায় দুই লক্ষ টাকা বাজেট মাথায় নিয়ে এই চারাগাছ কেনা হয় এবং বিলি করা হয়।