Date : 2022-12-03

খাবার হোক আসল ওষুধ। এই ভাবনাতেই একটা আস্ত ক্যাফে বানিয়ে ফেললেন এক ডাক্তার বাবু।

শাহিনা ইয়াসমিন, সাংবাদিক: বাঙালি খাদ্য রসিক। কব্জি ডুবিয়ে রসনা পূরণ করতে মাহির। শুধু যে বাঙালি তা নয়। বাঙালি অবাঙালি সকলেই খাদ্যরসিক। যারা খেতে ভালোবাসে সেই সব খাদ্য প্রিয় মানুষরা পেট পুজো করতে কোন রেস্তোরাঁয় কোন খাবার টা ভালো তার খবর ঠিক বার করে নেই। খাওয়ার সময় চিন্তা করি কোনটা খাবারটা খেলে শরীরের পক্ষে ভালো হবে বা বেশি ক্যালরি যুক্ত খাবার খেয়ে নিচ্ছি না তো। এই চিন্তা তে অনেক সময় ঠিক করে খাওয়াই হয় না। আর এই সব ভাবতে হবে না। কারণ কলকাতার বুকে রয়েছে হেলথ ক্যাফে। যা আপনাকে কোন খাবারে কতটা ক্যালারি, প্রোটিন, কার্বহাইড্রেট আছে তার পরিমাপ জানিয়ে দেবে। কসবা নিউ মার্কেটের ঠিক উল্টো দিকে অবস্থিত হেল্থ ক্যাফে যার নাম Ecclesiastes(অ্যাকলিসিয়াস্টিস) ক্যাফে।

সুন্দর করে সাজানো সেই ক্যাফে। ক্যাফের ভিতরে সবুজের ছোঁয়া।প্রতিটি টেবিলে রয়েছে মেনু কার্ড। মেনু কার্ডের প্রত্যেক খাবারের পাশে তার ক্যালরি পুষ্টি গুণ উল্লেখ করা রয়েছে। খাবারের নামের পাশেই লেখা রয়েছে খাবারে অবস্থিত ক্যালোরি, প্রোটিন ও কার্বহাইড্রেট এর পরিমাণ। যা আপনি দেখে ও বুঝেই অর্ডার দেবেন। তবে এখানেই শেষ নয়। যদি আপনি ডায়েট চার্ট চান তাহলে তাও পেয়ে যাবেন। কারণ এই হেল্থ ক্যাফে যিনি তৈরি করেছেন তিনি নিজে একজন চিকিৎসক এবং সার্জেন ডা: পূর্ণেন্দু রায়।

এই হেল্থ ক্যাফে টি ভালো সাড়া পাওয়া যাচ্ছে। আট থেকে আশি সকলের আনাগোনা এখানে বলে জানান জেনাসিস গ্রুপ অফ কোম্পানি এবং হেল্থ ক্যাফের ডিরেক্টর অলিভিয়া ডানলপ। তবে এখানেই শেষ নয় হেল্থ ক্যাফে থেকে যে অর্থ পাওয়া যায় সেই অর্থ দিয়েই সাহায্য করা হয় সুন্দরবনে অবস্থিত দুঃস্থ পরিবারদের। সুন্দরবনে যারা মধু সংগ্রহ করতে গিয়ে বাঘের আক্রমণে মারা গেছেন সেই সব পরিবারকে সাহায্যের হাত বাড়িয়ে দিয়েছেন এনারা। এমনি একজন খাদ্যরসিক বাঙালি গ্রাহক অমিত রায় যিনি প্রায়শই এখানে আসেন এবং খাবার টেস্ট করেন। ভুয়োশী প্রশংসা করলেন এই ক্যাফের। এই ক্যাফের রোজগার ওদের অন্ন সংস্থানের জন্য। চার হাজার জন মানুষ নির্ভর করেন এই ক্যাফের ওপর। শিশুদের পড়াশোনার জন্যে স্কুল তৈরি করার ভাবনা চিন্তাও চলছে। দুঃস্থ, পীড়িত, পিছিয়ে পরা মানুষজনের জন্যে যদি এই ভাবে সাহায্যের হাত বাড়িয়ে দেওয়া যায় তাহলে তাদের মুখে কিছুটা হলে হাসি ফোটানো যেতে পারে। যার দাম অমূল্য।