Date : 2024-05-26

তীব্র দাবদহের জন্য পঠনপাঠন সাময়িক বন্ধ থাকছে কলকাতা বিশ্ববিদ্যালয়ে

নাজিয়া রহমান, সাংবাদিক : তীব্র তাপপ্রবাহের হাত থেকে ছাত্রছাত্রীদের স্বস্তি দিতে ২ মে থেকে ১১ মে পর্যন্ত স্নাতক ও স্নাতকোত্তরে পঠনপাঠন সাময়িক বন্ধ রাখার সিদ্ধান্ত নিল কলকাতা বিশ্ববিদ্যালয় কর্তৃপক্ষ। বিশ্ববিদ্যালয়ের অন্তবর্তী কলেজগুলিকে এই নির্দেশিকা পাঠিয়ে দেওয়া হয়েছে।

দক্ষিণবঙ্গ জুড়ে চলছে তীব্র তাপপ্রবাহ। শহর কলকাতার তাপমাত্রা ৪৩ ডিগ্রি। এই তীব্র তাপপ্রবাহের হাত থেকে শিক্ষার্থীদের রেহাই দিতে পঠনপাঠন সাময়িক বন্ধ রাখার সিদ্ধান্ত নিল কলকাতা বিশ্ববিদ্যালয় কর্তৃপক্ষ। বিশ্ববিদ্যালয় এবং অধীনস্থ সমস্ত কলেজে সাময়িক ছুটি ঘোষণা করে দেওয়া হল। কলকাতা বিশ্ববিদ্যালয়ের তরফ থেকে একটি বিজ্ঞপ্তি জারি করে জানিয়ে দেওয়া হয়েছে, ২ মে থেকে ১১ মে পর্যন্ত তীব্র গরম এবং তাপপ্রবাহের কারণে স্নাতক ও স্নাতকোত্তরের পঠনপাঠন আপাতত বন্ধ রাখা হচ্ছে। বিশ্ববিদ্যালয়ের অন্তর্ভুক্ত যে সমস্ত কলেজগুলি আছে সংশ্লিষ্ট কলেজগুলিতেও ক্লাস সাময়িক ভাবে বন্ধ রাখা হবে বলে জানানো হয়েছে। এপ্রিল মাসের প্রথম সপ্তাহ থেকেই বাড়তে শুরু করেছে তাপমাত্রার পারদ। তীব্র তাপপ্রবাহের হাত থেকে শিক্ষার্থীদের রেহাই দিতে ২২এপ্রিল থেকে সরকারি স্কুলগুলিতে পড়েছে গরমের ছুটি। বন্ধ রাখা হয়েছে বেশিরভাগ বেসরকারি স্কুল। অনেক স্কুলই অনলাইন ক্লাস করাচ্ছে। তাপমাত্রার পারদ ক্রমশই ঊর্ধ্বমুখী। সত্তর বছর পর এপ্রিল মাসে মহানগরের তাপমাত্রা হয় ৪৩ ডিগ্রি সেলসিয়াস। এই পরিস্থিতিতে এবার কলেজ শিক্ষার্থীদের স্বস্তি দিতে সাময়িক কিছুদিন পঠনপাঠন বন্ধ রাখার সিদ্ধান্ত নিল কলকাতা বিশ্ববিদ্যালয় কর্তৃপক্ষ। বিশ্ববিদ্যালয় ও এবং কলকাতা বিশ্ববিদ্যালয় অন্তর্ভুক্ত কলেজগুলি খোলার পরে অতিরিক্ত ক্লাস নিয়ে পঠনপাঠন সম্পন্ন করা হবে বলেও জানিয়েছেন কর্তৃপক্ষ।

আরো পড়ুন: এসসি এসটি ওবিসিরা কংগ্রেস থেকে দূরে, ধর্মের প্রশ্নে খোঁচা মোদীর।