Date : 2020-10-31

২০০০ টাকা ছাপানো বন্ধ করল রিজার্ভ ব্যাঙ্ক

ওয়েব ডেস্ক: বাজারে পর্যাপ্ত নোটের যোগান থাকায় আপাতত ২০০০ টাকার নোট ছাপানো বন্ধ করার সিন্ধান্ত নিল রিজার্ভ ব্যাঙ্ক অফ ইন্ডিয়া। কয়েক মাস আগেই ২০০০ টাকার নোট ছাপানো বন্ধ করে ছোট অঙ্কের নোট ছাপানো শুরু করেছে রিজার্ভ ব্যাঙ্ক অফ ইন্ডিয়া। রিজার্ভ ব্যাঙ্ক সূত্রে জানানো হয়েছে, চলতি অর্থবর্ষ থেকে আর ২০০০ টাকার নোট ছাপানো হবে না। ২০১৬ সালে বিমুদ্রাকরণের পর বাজারে আসে ২০০০ টাকার নোট। সেই সময় বাজারে নোট সমস্যা ছিল তুঙ্গে। সেই মুহুর্তে পরিস্থিতি সামলাতে প্রচুর পরিমাণে বড় অঙ্কের নোটের জোগান দেওয়া হয়েছিল। এখন সেই পরিস্থিতি অনেকটাই স্বাভাবিক বলে মনে করছে রিজার্ভ ব্যাঙ্ক অফ ইন্ডিয়া। এখনও পর্যন্ত প্রায় ৩.৭ বিলিয়ন ২০০০ টাকার নোট অর্থাৎ ৭.৪ ট্রিলিয়ন টাকা ছাপা হয়েছে ৷ বিমুদ্রাকরণের কারণে ২০১৬ সালের ৮ই নভেম্বর,৬.৩ বিলিয়ন ১০০০ টাকার নোট বাজার থেকে তুলে নেওয়া হয়েছিল৷ সূত্রের খবর, এরপর ১০০০ টাকার বদলে বেশি পরিমাণে ৫০০ টাকার নোট ছাপানো হয়েছিল৷ এখনও পর্যন্ত প্রায় ১৪ বিলিয়ন ৫০০ টাকার নোট ছাপানো হয়েছে৷ ২০১৬ সালের ৮ নভেম্বর বাতিল করা হয়েছিল ১৫.৭ বিলিয়ন পুরনো ৫০০ টাকার নোট৷ তবে ২০০০ টাকার নোট ছাপানো আপাতত বন্ধ হলেও বাজারে প্রচুর পরিমানে ২০০ টাকার নোট শীঘ্রই আসতে চলেছে বলে জানানো হয়েছে রিজার্ভ ব্যাঙ্কের তরফে। ২০০০ টাকার নোট ছাপানো বন্ধের সিদ্ধান্তের বিরোধীতা করলেও বাজারে ২০০০ টাকার নোট ভাঙানোর জন্য কিছু ক্ষেত্রে সমস্যার মধ্যে পড়তে হচ্ছে মানুষকে। নতুন ১০০০-এর নোট নিয়ে জল্পনা দেখা দিলেও সম্প্রতি কেন্দ্রের তরফে স্পষ্ট জানিয়ে দেওয়া হয়েছে এই মুহুর্তে বাজারে ১০০০টাকার নোট আসছে না। ২০০০ টাকার নোটের বদলে তাই ২০০ টাকার নোট চালু করার সিদ্ধান্ত নিয়েছে রিজার্ভ ব্যাঙ্ক।