Date : 2020-10-24

খেলনা দেখিয়ে কোটিপতি খুদে…

ওয়েব ডেস্ক: ঘরময় রাশিরাশি খেলনা। রয়েছে শপিং মল থেকে শুরু করে যুদ্ধের যাবতীয় সরঞ্জাম। সবই খেলনা সামগ্রী। যখন যেটা মন চায় তখন সেটা নিয়েই খেলতে পারে এই খুদে। বাড়ির বেশির ভাগ ঘরই খেলনা দিয়ে ডেকরেট করা। খেলার সময় বন্ধুরা ছাড়াও এই খুদের সঙ্গী হয় তার পরিবার। কিন্তু কি হবে এত খেলনার? একটা সময় পর ভেঙে এদিক ওদিক গড়াগড়ি খায় খেলনার সামগ্রীগুলো। কিন্তু না! এক্ষেত্রে সম্পূর্ণ আলাদা। এই খেলনাকেই আয়ের পথ হিসাবে বেছে নিয়েছে খুদেটি। নাম রায়ান, বয়স মাত্র সাত। এককথায়, ইউটিউবে দাপিয়ে বেড়ায় এই খুদে তারকা। ইতিমধ্যে কেবল খেলনা দেখিয়ে কোটি টাকার মালিক রায়ান। ইউটিউব থেকে এই সাত বছরের শিশুটি আয় করেছে ১৭৬ কোটি টাকা। ফোর্বস ম্যাগাজিনের ধারণায়, জুন মাস নাগাদ বর্তমানের ইউটিউবের সেরা তারকা জ্যাক পলকে টপকে যাবে রায়ানের ইউটিউব চ্যানেল। খুদেটি কেবল তার খেলনাগুলি ইউটিউব চ্যানেলে দেখায়। আর সেখান থেকেই আজ তার খ্যাতি আকাশচুম্বী। এই বছর আয়কর বা এজেন্টদের ফি ছাড়া রায়ানের আয় গত বছরের তুলনায় দ্বিগুণ। এই প্রসঙ্গে এনবিসি চ্যানেল রায়ানের কাছে জানতে চেয়েছিল শিশুরা কেন তার ভিডিওগুলো দেখতে পছন্দ করে। রায়ানের স্পষ্ট জবাব, ‘কারণ আমি মজা করতে পারি।’ ২০১৫ সালে রায়ানের বাবা-মা ইউটিউবে এই চ্যানেলটি খোলে। আর বর্তমানে ১ কোটি ৭৩ লক্ষ সাবস্ক্রাইবার রয়েছে। ইউটিউবে রায়ানের প্রথম ভিডিওটি ছিল প্লাস্টিকের ডিম ভেঙে সেখান থেকে খেলনা বের করা। ভিডিওটি প্রকাশের কয়েক ঘন্টার মধ্যেই ভিউয়ার্স ছাড়িয়েছিল আশি কোটি। তবে ইন্টারনেটে খুব পরিচিত মুখগুলোর একটি হওয়া সত্ত্বেও রায়ানের পরিচয় নিয়ে রয়েছে ব্যাপক রহস্য। তার নামের শেষাংশ কী, সে কোথায় থাকে এসব কেউ জানে না। এমনকি রায়ানের মা নিজেও তার নিজের পরিচয় প্রকাশ করেননি।