Date : 2020-10-27

উইকেন্ডে হাওয়া বদলাতে হাতছানি দিচ্ছে বগুড়ানজলপাই-এর সমুদ্র

ওয়েব ডেস্ক: সারা সপ্তাহ অফিস আর কাজের চাপ। উইকেন্ড ছুটিতে মনটা উড়ু উড়ু করলে দিঘা, মন্দারমণির কিংবা শংকরপুরের সমুদ্র হাতছানি দেয় অনেককেই। তবে একই জায়গায় গিয়ে একঘেয়েমি ধরেছে যাদের তাদের জন্য অপেক্ষা করে আছে বগুড়ানজলপাই-এর সমুদ্র সৈকত। কাঁথি এক নম্বর ব্লকের এই নতুন ট্যুরিস্ট স্পট খুব বেশি দূরেও নয়, ভ্রমণ পিপাসু মানুষের জন্য এটা অবশ্যই একটা অফবিট স্পট। তাই এখন দিঘার একঘেয়ে ঢেউ দেখে যারা ক্নান্ত, একটু নিরিবিলি ঠিকানা যারা খুঁজছেন, তাদের জন্য কাঁথি এক নম্বর ব্লকের কাছে বগুড়ানজলপাই পর্যটন কেন্দ্রের সমুদ্র নতুন সমুদ্রের ঠিকানা। বঙ্গোপসাগরের শান্ত ঢেউ। সৈকতের কিছু অংশ কংক্রীটে বাঁধানো। পাশে ঝাউগাছের সারি। তার গা ঘেঁষেই রিসর্ট। নিরিবিলি এলাকায় শুধু মাছ ধরার নৌকার আনাগোনা। সঙ্গে সারি সারি লাল কাঁকড়ার ভিড়৷ মনের মানুষ হোক কিংবা পরিজনদের সঙ্গে একান্তে সময় কাটানোর জন্য এর চেয়ে ভাল ঠিকানা আর কী-ই বা হতে পারে? তবে সদ্য গড়ে ওঠা এই স্পট এখনো সেভাবে তৈরী হয়নি পর্যটনের জন্য। রাত্রীবাসের জন্য নিরিবিলিতে রযেছে গেস্ট হাউস, আবার অ্যাডভেঞ্চর প্রিয় মানুষের জন্য ঝাউবনে রাত কাটানোর জন্য তাবুর ব্যবস্থা|ঝাউ জঙ্গল এবং জায়গাটা একটু ফাঁকা হলেও নিরাপত্তার তেমন চিন্তা নেই। কারণ পুলিশি টহল থাকে। এই ট্যুরিস্ট স্পটের একমাত্র রিসর্টে থাকতে গেলে অনলাইন বুকিং করা যায়। থাকার খরচ পিছু ১০০০ টাকা। যদিও খাওয়া খরচ আলাদা৷