Date : 2021-01-24

মনীষীদের মূর্তি নিয়মিত পরিচ্ছন্ন রাখবে পুরসভা

কলকাতা: বাংলার নবজাগরণের ইতিহাস মহামনীষীদের দ্বারা গরিমান্বিত।

সেই মনীষীদের শ্রদ্ধা জানাতে শহরের এক একটি রাস্তার নামের সঙ্গে জড়িত রয়েছে তাঁদের স্মৃতি।

পাশাপাশি শহর কলকাতার প্রতিটি ক্রসিং অথবা পার্কে কোন না কোন মনীষীদের আবক্ষ অথবা পূর্ণ অবয়ব মূর্তি চোখে পড়বেই।

সরকারের উদ্যোগে এইসব মূর্তি তৈরি হয়েছে তাদের শ্রদ্ধা জানাতে।

তাঁদের জন্ম অথবা মৃত্যু তিথিতে মূর্তিতে মাল্যদান করে শ্রদ্ধা জানানো হয়।

এই সব মূর্তির রক্ষণাবেক্ষণের দায়িত্বে রয়েছে কলকাতা পুরসভার উদ্যান পারিষদ।

খোলা আকাশের নিচে থাকায় পশু-পাখিদের কারণে ও ধুলো ময়লায় অপরিচ্ছন্ন হয় এই মূর্তিগুলি।

এইসব মূর্তিগুলি শুধুমাত্র মনীষীদের জন্মদিনে রঙ করে রক্ষণাবেক্ষণ করা হয়।

এবার কলকাতা পুরসভার উদ্যোগে নিয়মিত মূর্তিগুলি পরিষ্কার করার উদ্যোগ নেওয়া হয়েছে।

প্রত্যেক এলাকায় মাসে অন্তত একবার করে শ্যাম্পু দিয়ে ধোয়া হবে মনীষীদের মূর্তি।

এমনকি ভেঙে যাওয়া মূর্তিগুলির রক্ষণাবেক্ষণ করা হবে নিয়মিত।

ইতিমধ্যে দরপত্র করে এজেন্সিগুলিকে এই দায়িত্ব দেওয়ার ব্যপারে উদ্যোগী হয়েছে কলকাতা পুরসভা।

শুধুমাত্র মনীষীদের জন্মদিন নয়, শহরের মনীষীদের মুর্তিগুলি রোজই নতুনের মতো দেখাবে।

বেছে বেছে প্রতিটি এলাকায় মূর্তি পরিষ্কারের কাজ করবে কলকাতা পুরসভা।

মনীষীদের মূর্তি পরিষ্কার বাবদ খরচ পরবে আড়াই থেকে তিন লক্ষ টাকা।

তবে মূর্তি পরিচ্ছন্ন রাখার জন্য কলকাতা পুরসভার পাশাপাশি নাগরিকদেরও বিশেষ দায়িত্ব পালন করতে হবে।

কারণ মূর্তি শুধুমাত্র পাখির মল বা ধুলো বালিতেই ময়লা হয় না, পান, গুটখার পিক থেকেও অপরিষ্কার হয়।

সেক্ষেত্রে নাগরিক সচেতনতা জরুরি।

পান, গুটখার পিক ফেলে মূর্তি অপরিচ্ছন্ন করলে কলকাতা পুরসভার তরফে নেওয়া হতে পারে কড়া ব্যবস্থা।