Date : 2020-10-26

তৃণমূলের প্রার্থী তালিকায় এক ঝাঁক তারা

ওয়েব ডেস্ক: তৃণমূলের প্রার্থী তালিকা প্রকাশের আগে থেকেই গুঞ্জন শুরু হয়েছিল, এবারেও এক ঝাঁক তারকা প্রার্থী দিতে চলেছে তৃণমূল কংগ্রেস। টলিউডের দুই গ্ল্যামার গার্লের নাম ছিল সেই তালিকার শীর্ষে। প্রার্থী তালিকা চূড়ান্ত হতেই জল্পনা পরিনত হল বাস্তবে। তৃণমূল নেত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় বড় চমক দিয়ে অভিনেত্রী মিমি চক্রবর্তীকে করলেন যাদবপুরের প্রার্থী, আর বসিরহাট কেন্দ্র থেকে প্রার্থী করলেন “ক্রিস ক্রস” খ্যাত অভিনেত্রী নুসরত জাহানকে।

সপ্তদশ লোকসভা নির্বাচনে এবার যাদবপুর থেকে প্রার্থী হচ্ছেন না সুগত বসু সেকথা আগেই তিনি দলনেত্রীকে জানিয়ে দেন। সেই আসন থেকেই এবার হেভিওয়েট প্রার্থী হচ্ছেন অভিনেত্রী মিমি চক্রবর্তী। ২০১৪ লোকসভা নির্বাচনে যাদবপুর কেন্দ্র থেকে জয়লাভ করেছিলেন সুগত বসু। এবার যাদবপুর কেন্দ্র থেকে অরূপ বিশ্বাসের নাম উঠেছিল দলের অন্দরে। শেষ পর্যন্ত চূড়ান্ত প্রার্থী তালিকায় নাম আসে অভিনেতেরী মিমি চক্রবর্তীর। উল্লেখ্য, দিন পাঁচেক আগে সোশ্যাল মিডিয়ায় ছবি পোস্ট করে “নিউ ডেজ, নিউ বিগিনিংস” লেখেন। জীবনে কোন নতুন ইনিংস শুরুর কথা বলতে চেয়েছিলেন অভিনেত্রী, সেই নিয়ে রীতিমতো সেদিন ধোঁয়াশায় পড়ে যায় তার অনুরাগী মহল।

ঠিক একই ভাবে নুসরত জাহানকে বসিরহাট কেন্দ্র থেকে প্রার্থী করেন তৃণমূল সুপ্রিমো। বসিরহাটের বিদায়ী সাংসদ ইদ্রিশ আলি, এবার তিনি টিকিট পাননি লোকসভা ভোটের। সেখানে প্রার্থী করা হয়েছে নুসরতকে। অন্যদিকে, প্রথমে মুনমুন সেন ও শতাব্দী রায়কে প্রার্থী করা হবে না বলে শোনা গেলেও শেষপর্যন্ত দুজনকেই প্রার্থী করা হয়েছে। শতাব্দী রায়কে বীরভূম কেন্দ্রে এবং বাঁকুড়ার বদলে আসানসোল থেকে প্রার্থী করা হয় মুনমুন সেনকে। এছাড়া ঘাটাল থেকে এবারও প্রার্থী হচ্ছেন দেব।