Date : 2020-10-25

বিবাহবর্হিভূত সম্পর্কের জেরে খুন গৃহবধু

দক্ষিণ ২৪ পরগণা: স্বামীর বিবাহ বর্হিভূত সম্পর্কের প্রতিবাদ করায় খুন হতে হল গৃহবধুকে। অভিযোগ, বেশকিছুদিন ধরে পরিবার ছেড়ে প্রেমিকার সঙ্গে আলাদা থাকতে শুরু করে দক্ষিণ ২৪ পরগনার বারুইপুরের বাসিন্দা টুম্পা গায়েনের স্বামী হরিদাস গায়েন। হরিদাসের বিবাহবহির্ভূত সম্পর্ক জানতে পেরে প্রতিবাদ করেন স্ত্রী টুম্পা। তার জেরেই স্ত্রীকে খুন করেন হরিদাস গায়েন এমনটাই অভিযোগ উঠছে। স্থানীয় সূত্রে খবর, ৯ বছর আগে টুম্পার সঙ্গে বিয়ে হয় হরিদাস গায়েনের। তাদের একটি পুত্র সন্তানও আছে। সম্প্রতি বিবাহ বর্হিভূত সম্পর্কে জড়িয়ে পড়েন হরিদাস। বিবাহবর্হিভূত সম্পর্কের প্রতিবাদ করায় টুম্পার উপর রোজ অত্যাচার চলত।

অত্যাচার সহ্য করতে না পেরে ডিভোর্স চেয়েছিলেন টুম্পা। কিন্তু ডিভোর্স দিতে রাজি ছিল না হরিদাস গায়েন। বুধবার বিকেলে টুম্পার বাবার কাছে ফোন আসে মেয়ের অসুস্থতার খবর জানিয়ে। শশুরবাড়ির তরফে জানানো হয়, তাকে বারুইপুর হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে। খবর পেয়ে তার পরিবারের লোকজন বারুইপুর হাসপাতালে ছুটে গিয়ে টুম্পার মৃত্যুর খবর জানতে পারেন। ঘটনার পর টুম্পার পরিবারের তরফে খুনের অভিযোগ করে বারুইপুর থানায় লিখিত অভিযোগ দায়ের করা হয়। তদন্তে নেমে পুলিশ জানতে পারে গলায় দড়ি দিয়ে মৃত্যু হয়েছে টুম্পার। ঘটনার পর থেকে অভিযুক্ত হরিদাস পলাতক। তার খোঁজে তল্লাশি শুরু করেছে পুলিশ।