Date : 2019-08-23

ব্লাড ক্যান্সারে যুগান্তকারী আবিষ্কারের পথে চিকিৎসা বিজ্ঞান

ওয়েব ডেস্ক: ব্লাড ক্যান্সার সারিয়ে ফেলতে এবার যুগান্তকারী আবিষ্কারের পথে বেঙ্গালুরুর একদল গবেষক। আবিষ্কৃত স্টেম সেল প্রোটিনের নাম আস্রিজ। একটি ইন্টারন্যাশানাল বিজ্ঞান পত্রিকার একটি সংখ্যায় গবেষণা পত্রটি বের হয়। জওহরলাল নেহেরু সেন্টার ফর অ্যাডভান্সড সায়েন্টিফিক রিসার্চ-এর গবেষক সালোনি সিনহার নেতৃত্বে একদল গবেষক কাজ করে যাচ্ছেন এর উপর। রক্তে একধরনের রোগের ফলে রক্তকোষগুলির সংখ্যা হঠাৎই পরিবর্তিত হতে থাকে। কোষের সংখ্যা ক্রমশ বাড়তে থাকে। ওই পূর্ণাঙ্গ কোষগুলিই ক্রমশ ক্যান্সার কোষে পরিনত হয়। অস্বাভাবিক দ্রুতে হারে বাড়তে থাকে ক্যান্সারের কোষ। পি-৫৩ নামে একটি প্রোটিন অনুঘটক হিসাবে কাজ করে কোষ বৃদ্ধিতে। প্রোটিন আমাদের শরীরে যে কোন রোগের কারণ। কোন কোন প্রোটিন যেমন শরীরের পক্ষে উপকারি তেমন কিছু প্রোটিন বিপজ্জনক। পি-৫৩ নামে এই প্রোটিনকে প্রতিহত করতে অ্যাস্রিজ নামে একটি প্রোটিন আবিষ্কার করেন গবেষকরা। ইঁদুরের উপর পরীক্ষা করে দেখা গেছে এই প্রোটিন রক্তে ক্যান্সার সারাতে সাহায্য করেছে। রক্তে অ্যাস্রিজ প্রোটিনের পরিমান কম থাকলেও ব্লাড ক্যান্সার হতে পারে। ৯০ শতাংশ ক্ষেত্রেই ব্লাড ক্যান্সারের কারণ পি-৫৩ প্রোটিন। সালোনীর কথায়, রক্তে পি-৫৩ এর মিউটেশন ছাড়াও ক্যান্সার হতে পারে। অ্যাস্রিজ প্রোটিন না থাকলেও অনেক সময়, পি-৫৩ প্রোটিন নষ্ট হয়ে যায়। গবেষণার ফলে সেই প্রশ্নেরই জবাব পাওয়া গেছে। তবে এই গবেষণা যে ব্লাড ক্যান্সারের গবেষণায় বিশেষ ভাবে নতুন দিশা দেখাবে তা বলাই বাহুল্য।