Date : 2019-07-21

অগ্নি, পৃথ্বী, আকাশের পর সেনাবাহিনীতে যুক্ত হতে চলেছে এই ক্ষেপনাস্ত্র

ভারতীয় সমরাস্ত্রে যুক্ত হতে চলেছে আরও একটি শক্তিশালী ক্ষেপনাস্ত্র। নাগ নামের এই ক্ষেপনাস্ত্র অর্ন্তভুক্ত হতে চলেছে ভারতীয় সেনাবাহিনীতে। রবিবার সেই উপলক্ষে পোখরানে পরীক্ষামূলক ব্যাবহার করা হয় এটি। ডিআরডিও পক্ষ থেকে ররিবার এই ক্ষেপনাস্ত্র গুলিকে পরীক্ষা করা হয়।আরও বেশ কিছু পরীক্ষা সোমবারও করা হবে বলে জানা গেছে। বেশ আর কিছু পরীক্ষার পরই সেনাবাহিনীতে অর্ন্তভুক্ত করা হবে এই শক্তিশালী ক্ষেপনাস্ত্রকে।

উন্নত প্রযুক্তির এই মিসাইল গুলিকে ব্যবহার করা হবে ভারতীয় সেনাবাহিনীর অত্যাধুনিক গাড়িতে।ডিফেন্স অ্যাকুইজিসন কাউন্সিলের তরফে ডিআরডিওকে গত বছরই এই মিসাইলের ব্যাপারে সম্মতি প্রদান করা হয়। যার জন্য খরচ হতে চলেছে প্রায় ৫২৪ কোটি টাকা।অ্যান্টি ট্যাঙ্ক মিসাইল হিসেবে খ্যাত নাগ ক্ষেপনাস্ত্র দিন অথবা রাত যে কোন সময়েই শত্রুপক্ষের ট্যাঙ্ককে ধ্বংস করতে সক্ষম।১৯৮০ দশকে যে সেরা পাঁচটি মিসাইল তৈরির যে উদ্যোগ নেওয়া হয়েছিল তার মধ্যে অন্যতম ছিল নাগ ক্ষেপনাস্ত্র। এর আগে অগ্নি, পৃথিবী এবং আকাশ এই তিনটি ক্ষেপনাস্ত্রকে সেনাবাহিনীর অর্ন্তভুক্ত করা হয়।