Date : 2019-11-12

এবারে পুজো বন্ধ মহম্মদ আলি পার্কে…

কলকাতা: পুজো হচ্ছে না মহম্মদ আলি পার্কে। উত্তর কলকাতার এই ঐতিহ্যবাহী পুজোর স্থান বদল হচ্ছে। তবে শুধুমাত্র এই বছরের জন্যই মহম্মদ আলি পার্কের পুজো সরিয়ে নিয়ে যাওয়া হচ্ছে। মহম্মদ আলি পার্কের বদলে তাঁরাচাঁদ দত্ত স্ট্রীটে সরিয়ে নিয়ে যাওয়া হবে দুর্গাপুজো। পুরসভা সূত্রে খবর, মহম্মদ আলি পার্কের পুজো গোটা রাজ্যবাসীর কাছেই আবেগ। তাই পুজো সরিয়ে নিয়ে যাওয়ার ক্ষেত্রে সমস্যা হতে পারে। ওই পার্কে ব্রিটিশ আমলের তৈরি একটি জলাধার মেন ভিলেনের ভূমিকা নিয়েছে। ইটের কাঠামো দিয়ে নির্মিত জলাধারের একাংশ হঠাৎ-এ ভেঙে পড়ে, যার ফলে গোটা পার্কে জলে পূর্ণ হয়ে যায়। জল পৌঁছে যায় সেন্ট্রাল অ্যাভিনিউ পর্যন্ত।

মেয়র পারিষদ দেবাশিষ কুমার ঘটনার জন্য পার্কে পুরসভার জলবিভাগের ইঞ্জিনিয়রদের পাঠিয়ে পরিস্থিতি কিছুটা সামাল দেন। ব্রিটিশ আমলে তৈরি জলাধারের সম্পূর্ণ সংস্কার না করে ওই পার্কে দুর্গাপুজোর প্যাণ্ডেল তৈরি করা সম্ভব নয়। মানুষের সুরক্ষার কথা ভেবে তাই মহম্মদ আলি পার্কের পুজো অন্যত্র সরিয়ে নিয়ে যাওয়ার কথা ভেবেছে পুজো কর্তৃপক্ষ।

মেয়র এবং মেয়র পারিষদের অনুরোধে স্থান বদলের সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়েছে বলে জানিয়েছেন মহম্মদ আলি পার্ক পুজো কমিটির সভাপতি হেমচাঁদ জৈন। প্রবীণ হেমচাঁদবাবু জানান, ওই পুজোর সূচনা হয়েছিল ৫০ বছর আগে। সে সময়ে পুজো হত পার্কের উল্টো দিকে মুনলাইট সিনেমা হলের কাছে, ৩৯ নম্বর তারাচাঁদ দত্ত স্ট্রিটে।

সেখানে টানা ১৪ বছর পুজো চলে। পরে ওই জায়গায় পুজো করা নিয়ে সমস্যা দেখা দেয়। জ্যোতি বসু মুখ্যমন্ত্রী থাকাকালীন জায়গা বদল করতে বলা হয়। তৎকালীন নগরোন্নয়নমন্ত্রী প্রশান্ত শূর মহম্মদ আলি পার্কে পুজো করার অনুমতি দেন। সেই থেকে পার্কে পুজো হচ্ছে। এদিকে পুরসভার পক্ষ থেকে জানানো হয়েছে অবিলম্বে ওই পার্কের জলাধার পুনঃনির্মান না করলে ওই পার্কে পুজো করা সম্ভব নয়। তবে পরিস্থিতির কথা ভেবে স্থান বদলের সিদ্ধান্ত মানুষ আগামী দিনে মেনে নেয় কিনা সেটাই দেখার।