Date : 2019-11-12

তিস্তার বাঁধে লুকিয়ে ছিল “রিভার মনস্টার”….

ওয়েব ডেস্ক: তিস্তা নদীর বাঁধে ধরা পড়ল ৮০ কেজি ওজনের জায়েন্ট ফিস। মাছ ধরতে গিয়ে হঠাৎই জেলেদের জালে ধরা পড়ে এই বিশালাকার মাছ। স্থানীয় জেলেরা মাছটিকে বাঘা আড় বলে জানিয়েছে। স্থানীয় মৎসজীবী রুহিদাস তার সঙ্গীদের নিয়ে শুক্রবার সকালে তিস্তা ব্যারেজের লকগেট এলাকায় মাছ ধরতে যান।এই সময়ই তাঁদের জালে ধরা পড়ে এই বিশালাকার আড় মাছটি। রোজের মতো এদিনও তিস্তা নদীর বাঁধে জাল ফেলে বসেছিলেন জেলেরা।

কিছুক্ষণ পর জাল তুলতে গেলে প্রচণ্ড ভারী অনুভব হয় তাদের। চারজন জেলে দীর্ঘক্ষণ চেষ্টা চালিয়ে জাল তুলতে গিয়েই দেখেন বিশালাকার এই আড় মাছটি তাদের জালে আটকে পড়েছে।

মাছটিকে জল থেকে তুলতে রীতিমতো হিমশিম খেতে হয়েছে মৎসজীবীদের। জালে ধরা পড়া ১০ কেজি ওজনের আরও কিছু মাছ তোলা গেলেও বিশালাকার আড় মাছটি তোলা নিয়ে রীতিমতো সমস্যায় পড়ে যান মৎসজীবীরা।

দীর্ঘক্ষণ জলের মধ্যেই জালে আটকে থাকা বিশাল মাছটি ছটফট করতে করতে নিস্তেজ হয়ে পড়ে। এরপর জেলেরা মাছটিকে দড়ি দিয়ে টেনে তুলে আনে জল থেকে।

গাজোলডোবার ১২ নং কলোনী অঞ্চলে পৌঁছতেই বিশাল ওজনের এই আড় মাছটিকে দেখতে ভিড় জমান স্থানীয় বাসিন্দারা। ৩০০ টাকা কেজি দরে মাছটা কিনে নেন পাইকারী ব্যবসায়ীরা।

মৎসবিশেষজ্ঞদের মতে, এটি আসলে বোয়াল গোত্রের আর মাছ। এদের রিভার মনস্টার বলে। তিস্তা নদীতে বিশালাকার আড় মাছ ধরা পড়ার ঘটনা নতুন কিছু নয়। এই মাছ নদীতেই ছিল। অন্যান্য মাছ খেয়েই বাঘা আড় বেঁচে থাকে। নদীর জল বেড়ে যাওয়ার বাঁধের দিকে চলে আসায় জেলেদের জালে ধরা পড়েছে মাছটি। স্থানীয় বাসিন্দাদের কথায় গত ২০ বছরে এত বড় ওজনের মাছ তিস্তা নদীতে ধরা পড়েনি।