Date : 2019-09-19

‘দলিত’ বলে অপমান, অপমানে আত্মঘাতী সরকারি আধিকারিক…

ওয়েব ডেস্ক: ছোটোবেলায় সবাইকেই হয়তো একবার না একবার শুনতে হয়েছে একটি বারণ। যার মূল বক্তব্য ছিল অনেকটা এরকম, বাড়ির কাজের লোক, ড্রেন পরিষ্কারের লোক বা ড্রাইভারদের ছেলেমেয়েদের সঙ্গে অত বেশি মেশার দরকার নেই। কারণ, তারা নিচু জাত। এবার ঠিক উল্টোটা ভাবুন তো দেখি!

আপনি নীচু জাত, আর সমাজের যে প্রান্তে আপনি যাচ্ছেন সেখানেই আপনাকে শুনতে হচ্ছে এই জাতের বিষয়ে খোটা। তাহলে আপনার কেমন লাগবে? উত্তরপ্রদেশের ত্রিবেন্দ্র কুমারের মানসিক অবস্থাটি ঠিক এমনই হয়েছিল। লখিমপুর খেরি জেলায় বেশ কয়েক বছর আগে কুম্ভী ব্লকে ভিলেজ ডেভেলপমেন্ট অফিসার হিসেবে নিযুক্ত হন ত্রিবেন্দ্র কুমার গৌরব।

বৃহস্পতিবার তাঁর বাড়ি থেকেই উদ্ধার হয় ত্রিবেন্দ্রর ঝুলন্ত দেহ। পকেটে পাওয়া গেছে একটি সুইসাইড নোটও। বাবার উদ্দেশ্যে লেখা সেই চিঠিতে পরিষ্কার ভাবে কিসান ইউনিয়ন লিডারদের বেশ কিছুজন লোকের নাম উল্লেখ করা হয়েছে। কৃষকদের একটি সভায় তাঁকে জাতপাত তুলে অপমান করা হয়েছিল বলে অভিযোগ করেছেন ত্রিবেন্দ্র। সভা চলাকালীন তাকে সবার সামনে খারাপ ভাষায় অপমানও করা হয়েছে। সেই অপমান না নিতে পেরেই আত্মঘাতী তিনি। কৃষক সংগঠনের তিন-চারজনকে গ্রেফতার করা হয়েছে।