Date : 2019-09-19

অর্জুনের লক্ষ্যভেদ! চন্দ্রযান-২র পর তৈরি হচ্ছে “গগনযান”, নির্বাচিত ১২ জন পাইলট…

ওয়েব ডেস্ক: দীর্ঘ প্রয়াসের পর গতকাল মধ্যরাতে চাঁদ ছুঁয়ে দেখার আগেই নিরুত্তর রইল “বিক্রম”। তাই দেখেই আশা হত হল গোটা দেশ। কিন্তু এত সহজে পিছু হটার পাত্র নয় ইসরো। চাঁদের দক্ষিণ গোলার্ধ জয় অধরা থাকলেও মহাকাশে প্রথম মানব স্পেস ফ্লাইট পাঠানোর জন্য প্রস্তুতি নিতে শুরু করল ইসরো। ইতিমধ্যে সেই প্রজেক্টের প্রস্তুতিও শুরু করে ১২ জন পাইলটের ফিটনেস টেস্ট প্রক্রিয়া শুরু করে দিয়েছে ইসরো।

গতবছর লালকেল্লায় বক্তৃতা দেওয়ার সময় প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদী জানিয়েছিলে “গগনযান”-এর কথা। সবকিছু ঠিক থাকলে ২০২২-এর মধ্যেই “গগনযান” ভারতের প্রথম মানব স্পেস ফ্লাইট হিসাবে পৌঁছে যাবে মহাকাশে। বেঙ্গালুরুর ভারতীয় বায়ুসেনার ইনস্টিটিউট অফ এরোস্পেস মেডিসিনে ইতিমধ্যে ১২ জন পাইলটের শারীরিক ও মানসিক স্বাস্থ্যের পরীক্ষা করে ফেলেছেন বিজ্ঞানীরা। তবে এখনও পর্যন্ত জানানো হয়নি সেই পাইলটদের নাম।

মনে করা হচ্ছে প্রজেক্ট যত এগিয়ে যাবে ততই এই সম্পর্কে বিস্তারিত তথ্য জানাবে ইসরোর বিজ্ঞানীরা। তবে এখনও পর্যন্ত এই তালিকায় কোন মহিলা পাইলট নেই বলেই খবর। প্রথম দফায় উত্তীর্ণ পাইলটদের ৯০ দিনের আরও কঠিন পরীক্ষা দিতে হবে।

সেখান থেকে মাত্র ৪জনকে বাছাই করা হবে। যদিও গগনযানের জন্য বাছাই করা পাইলটদের প্রশিক্ষণের জন্য পাঠানো হবে রাশিয়ায়। প্রশিক্ষণ শেষে গগনযানে মহাকাশ পারি দেওয়ার জন্য তৈরি হবেন তাঁরা।