Date : 2019-11-18

এখনই বেসরকারি হচ্ছে না ভারতীয় রেল, জানালেন পীযূষ গোয়েল….

ওয়েব ডেস্ক : ভারতীয় রেলের উন্নয়নে প্রয়োজন কয়েক লক্ষ কোটি টাকা। তবেই আধুনিকীকরণ সম্ভব। বিপুল অর্থের পরিমান কি দিতে পারবে ভারত সরকার! এই নিয়ে জল্পনা উঠতেই রেলের বেসরকারিকরণ নিয়ে প্রশ্ন উঠছিল। ইতিমধ্যেই প্রথম বেসরকারি এক্সপ্রেস ট্রেন তেজস চালু হয়েছে। রেল কি বেসরকারি হাতে তুলে দিতে চাইছে কেন্দ্রীয় সরকার? ভারতের প্রথম বেসরকারি ট্রেন তেজস এক্সপ্রেস গড়ানোর পর স্বাভাবিকভাবেই ইতিউতি উঠছে প্রশ্ন। বুধবার রেলমন্ত্রী পীযূষ গোয়েল স্পষ্ট করলেন, রেলকে বেসরকারিকরণের কোনও সিদ্ধান্তই নেয়নি কেন্দ্র। তবে রেলের জন্য বিশাল আর্থিক বিনিয়োগ চাই বলেও মনে করেন রেলমন্ত্রী।

বুধবার রেলমন্ত্রী পীযূষ গোয়েল বলেন, ,”ভারতীয় রেলের বেসরকারিকরণের সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়নি। ভারত সরকারের সংস্থাই থাকবে রেল। ভারতবাসীকে পরিষেবা দেবে।” সেক্ষেত্রে পাবলিক-প্রাইভেট পার্টনারশিপেই বিশ্বাস করছেন রেলমন্ত্রী পীযূষ গোয়েল।অতিসম্প্রতি ৫০টি স্টেশন ও ১৫০টি রেলের বেসরকারিকরণের জন্য কমিটি গঠন করেছে রেলমন্ত্রক। ওই কমিটিতে রয়েছেন নীতি আয়োগের সিইও, রেলবোর্ডের চেয়ারম্যান, অর্থনৈতিক বিষয়ক দফতরের সচিব, আবাসন ও নগর বিষয়ক দফতরের সচিব। রেলের চেয়ারম্যানকে একটি চিঠি দিয়েছেন নীতি আয়োগের চেয়ারম্যান। তিনি জানিয়েছন, দেশের ৪০০ টি স্টেশনের আধুনিকীকরণের জন্য বেসরকারি হাতে দেওয়া হতে পারে। এমনটাই খবর রেল সূত্রে।