Date : 2022-08-11

৭ নভেম্বর থেকে পানমশলা, গুটখা বিক্রি নিষিদ্ধ হবে পশ্চিমবঙ্গে…

ওয়েব ডেস্ক: সরকারি ভাবে আগেই জারি করা হয়েছিল নিষেধজ্ঞা। তাতেই বা কি, কড়া আইনের ফাঁক খুঁজে নিয়ে রাজ্য জুড়ে রমরমিয়ে চলেছে গুটখা, পানমশলার রাজত্ব। এবার এই প্রসঙ্গে কড়া পদক্ষেপ করবে রাজ্য সরকার। আগামী ৭ নভেম্বর থেকে রাজ্যের কোন দোকানে বিক্রি করা যাবে না গুটখা, পানমশলা। সচেতনতা মূলক প্রচার, আইন করেও বন্ধ করা যায়নি গুটখার বিক্রি।

তামাকের একটি অন্যতম অপরিশোধিত দ্রব্য হল গুঠখা। এটি ক্যান্সারের অন্যতম কারণ। মুখের ভিতর ঘা হয় গুঠখা থেকে। তামাকজাত দ্রব্যের প্যাকেটের গায়ে অথবা প্রেক্ষাগৃহে অনেক প্রচার করেও লাভ হয়নি কিছুই। সম্প্রতি রাজ্যের খাদ্য সুরক্ষা অধ্যক্ষ অথবা ফুড সেফটি কমিশনর তপনকান্তি রুদ্র একটি নির্দেশিকা জারি করেছেন। সেটাতে বলা রয়েছে, ২০০৬ সালের ‘ফুড সেফটি অ্যান্ড স্ট্যান্ডার্ড অ্যাক্ট’ অনুসারে, যে সমস্ত খাদ্যদ্রব্যে তামাক এবং নিকোটিনের ব্যবহার রয়েছে, সেগুলো নিষিদ্ধ।

গুটখা ও পানমশলায় অতিরিক্ত পরিমানে নিকোটিন থাকায় এই তা মুখের ভিতর ক্যান্সারের কারণ। এর আগে বিহারে নিষিদ্ধ করা হয়েছিল গুটখা। সম্প্রতি গুটখা এবং পান মশলার ওপর নিষেধাজ্ঞা জারি করেছে ত্রিপুরা এবং মেঘালয়ও। দু’সপ্তাহ আগে পান মশলার ওপর নিষেধাজ্ঞা জারি করেছে উত্তরাখণ্ড সরকার। শুধু গুটখাই নয়, তামাকজাত যে কোনও কিছু তৈরি এবং বিক্রির ক্ষেত্রে জারি করা হয়েছে নিষেধাজ্ঞা। এবার পশ্চিমবঙ্গেও আসছে কড়া আইন, নিষেধজ্ঞা অমান্য করলেই হবে জরিমানা ও শাস্তি।