Date : 2021-06-21

পাহাড় ডিঙিয়ে পরীক্ষা দিতে পড়ুয়ারা

লাইন দিয়ে পাহাড়ে উঠছে পড়ুয়ারা। কিন্তু কেন? প্রশ্নটা করলেই পড়ুয়াদের মুখে হতাশার ছবি ফুটে উঠে। খানিকটা থেমে উত্তর দেয়, সেমিস্টারের পরীক্ষা দিতেই রোজ পাহাড় বেয়ে উপরে উঠতে হয়। করোনা আবহে স্কুল কলেজ বন্ধ। তাই বন্ধ মিজোরাম বিশ্ববিদ্যালয়। ক্লাসও চলে অনলাইনে। করোনাকালে অনলাইনেই পরীক্ষারও ব্যবস্থা করেছে বিশ্ববিদ্যালয় কর্তৃপক্ষ। কিন্তু অনলাইনে পরীক্ষা শুনলেই চিন্তা শুরু হয় পড়ুয়াদের।

কারণ মিজোরামের মাহেরি গ্রামে বেহাল ইন্টারনেট কানেকশন। 2জি পরিষেবাও কোনওরকমে চলে। তাই অনলাইনে পরীক্ষা দিতে পারেন না পড়ুয়ারা। পরীক্ষা দিতে পাহাড় ডিঙিয়ে যেতে হয় তাঁদের। পাহাড়ে একটি বাঁশের ঘরে পরীক্ষা দেওয়ার ব্যবস্থা করা হয়। ঝড়বৃষ্টিতেও একই ছবি দেখা যায় পাহাড় ঘেরা গ্রামে। এখন প্রশ্ন এভাবে আর কতদিন চলবে ?

করোনাকালে শিক্ষাব্যবস্থার বেশিরভাগটাই ইন্টারনেট নির্ভর। গত এক বছরেও কেন এদিকে নজর দিল না প্রশাসন ? অবিলম্বে গ্রামে ইন্টারনেট ব্যবস্থা ঠিক করা হোক, দাবি পড়ুয়াদের।