Date : 2021-09-20

বাতিল আকাশপথে সফর। সড়কপথেই বন্যা কবলিত এলাকা ঘুরে দেখলেন মুখ্যমন্ত্রী

রাজ্যে দুর্যোগের ঘনঘটা। গত সপ্তাহেই নিম্নচাপের জেরে জলমগ্ন হয়ে পড়েছিল পূঃ মেদিনীপুর, কলকাতা, দুই 24 পরগনা, কলকাতার বিস্তির্ণ অংশ। জল নামতে সময় লাগে 48 ঘণ্টারও বেশি৤ বৃষ্টিতে জলমগ্ন হয়ে পড়ে হাওড়ার আমতা, উদয়নারায়ণপুরের একাংশ। সড়কপথ কার্যত নদীর চেহারা নিয়েছে হাওড়ার প্রত্যন্ত অঞ্চলে। ব্যাহত হয়েছে জনজীবন। করোনা আবহে নিম্নচাপের জেরে গ্রামীণ এলাকার স্বাস্থ্য ব্যবস্থা নিয়ে উদ্বেগে রয়েছে রাজ্য। বুধবার আকাশপথে আমতা ও উদয়নারায়ণপুর পরিদর্শন করার কথা ছিল মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যেপাধ্যায়ের। তবে সেই যাত্রায় বাধ সাধে বৃষ্টি। আবহাওয়া দফতর থেকে জারি করা হয়েছে বৃষ্টির পূর্বাভাস। বুধবার সকাল থেকেই রাজ্যের বিভিন্ন জায়গায় বিক্ষিপ্ত ভাবে বৃষ্টিপাত হয়।

এদিনের বৃষ্টিতে ফের জলমগ্ন হয়ে পড়ে কলকাতা-সহ বিভিন্ন জেলা। দুর্যোগের জেরে আগে থেকেই আকাশপথে মুখ্যমন্ত্রীর সফর বাতিল হয়। বন্যা কবলিত এলাকা ঘুরে দেখতে সড়কপথে রওনা হন মুখ্যমন্ত্রী। গাড়ি থেকে হাঁটুজলে দাঁড়িয়ে কথা বলেন বন্যা দুর্গতদের সঙ্গে। শুরুতে আমতা থেকে উদয়নারায়ণপুরে মুখ্যমন্ত্রীর যাওয়ার কথা থাকলেও বৃষ্টির কারণে তা বাতিল হয়। ডিভিসি থেকে জল ছাড়ার ফলে খানাকুল, উদয়নারায়ণপুর, আমতা-সহ একাধিক এলাকার একটা অংশই এখন জলের তলায়। তার ওপর ভারী বৃষ্টিতে নদীর জলস্তর ক্রমশই বাড়ছে। প্রাণ হাতে করে যাতায়াত করতে হচ্ছে স্থানীয় বাসিন্দাদের। এদিনের সফরে ডিভিসির জল ছাড়া প্রসঙ্গে ক্ষোভ প্রকাশ করেন মুখ্যমন্ত্রী। পাশাপাশি জলাধারগুুলি সংস্কারের দাবিও জানান তিনি।