Date : 2021-10-19

পাকিস্তানকে তুলোধনা ভারতের

পৌষালী সেনগুপ্ত, নিউজ ডেস্ক : রাষ্ট্রপুঞ্জের বৈঠকে তালিবানকে স্বীকৃতি দেওয়ার জন্য আবেদন করে পাক প্রধানমন্ত্রী ইমরান খান। তার বক্তব্যকে এবার কড়া ভাষায় সমালোচনা করল ভারত।রাষ্ট্রপুঞ্জের বৈঠকে ভারতের প্রতিনিধিত্ব করেন স্নেহা দুবে। তিনি বলেন রাষ্ট্রপুঞ্জের বৈঠকে পাকিস্তান যে সংগঠনকে গুরুত্ব দেওয়ার কথা বলছে সেটিকে নিষিদ্ধ ঘোষণা করার পাশাপাশি সেটি সন্ত্রাসবাদী জঙ্গিগোষ্ঠী।কাশ্মীর ইস্যুতে পাকিস্তানের নাক গলানোর সমালোচনা করেও বলা হয় যে, এটাই প্রথমবার নয়, যখন পাকিস্তান রাষ্ট্রপুঞ্জের মঞ্চকে ব্যবহার করে বিশ্বের নজর ঘোরানোর চেষ্টা করেছে সেই দেশের উপর থেকে, যেখানে সন্ত্রাসবাদীরা বিনা বাধায় ঘোরাফেরা করতে পারে।

শুক্রবারই রাষ্ট্রপুঞ্জের সাধারণ সভায় পাকিস্তানের প্রধানমন্ত্রী ইমরান খানের বক্তব্য সম্প্রচার করা হয়, যেখানে তাঁকে বলতে শোনা যায়, “নয়া দিল্লি জম্মু-কাশ্মীর সমস্যাকে নিয়ে নিজেদের মতো চূড়ান্ত সিদ্ধান্তে পৌঁছে গিয়েছে।” একইসঙ্গে তিনি অভিযোগ আনেন, ভারতীয় সেনা নাকি ক্রমাগত মানবাধিকার লঙ্ঘন করে চলেছে।

ইমরানের সেই অভিযোগের জবাব দিয়ে ভারতের তরফে বলা হয় সন্ত্রাসবাদীদের আশ্রয় দেওয়ার রেকর্ড পাকিস্তানের রয়েছে। যে ওসামা বিন লাদেনকে ৯/১১ হামলার মূল হোতা বলে গোটা বিশ্ব জানে পাকিস্তান তাকে শহীদ বলে আখ্যা দিয়েছিল।এটাই প্রথমবার নয়, যখন পাকিস্তানের নেতৃত্ব রাষ্ট্রপুঞ্জের দেওয়া মঞ্চের অপব্য়বহার করে ভুয়ো ও বিদ্বেষমূলক প্রচার চালিয়েছে ভারতের বিরুদ্ধে।

কাশ্মীর প্রসঙ্গেও রাষ্ট্রপুঞ্জে ভারতের সচিব স্নেহা দুবে বলেন, “দেশের অভ্যন্তরীণ বিষয়ে পাকিস্তানের ঢুকে পড়া ও বিশ্বমঞ্চে মিথ্যা উগরে দেওয়ার প্রতিবাদ জানানো হচ্ছে ভারতের তরফে। আফগানিস্তানকে স্বীকৃতি না দেওয়ার জন্য সমস্যায় পড়তে হচ্ছে পাকিস্তানকে। ইমরানের এই বক্তব্যকে কটাক্ষ করে স্নেহা বলেন “মিথ্যা বলা পাকিস্তানের পুরোনো অভ্যাস। তাদের এই মানসিকতার প্রতি আমাদের পূর্ণ সমবেদনা রইল।“কিছুদিন আগেই পাকিস্তানের এই আবেদনে সমর্থন না করায় সার্ক গোষ্ঠীর বৈঠক বাতিল হয়ে যায়।