Date : 2021-11-27

করোনা আবহে জিকা ভাইরাসের থাবায় উদ্বেগ কানপুরে

করোনা আবহে উত্তরপ্রদেশের কানপুরে ক্রমেই চওড়া হচ্ছে জিকা ভাইরাসের থাবা। ভারতীয় বায়ুসেনার ৩ কর্মী সহ আরও ১০জনের নমুনা জিকা ভাইরাস পজিটিভ এসেছে।  এই নিয়ে কানপুরে  সংক্রমিতের সংখ্যা ৮৯-এ পৌঁছেছে। এমনই জানিয়েছেন জেলাশাসক বিশাক জি আয়ার। সম্প্রতি মশাবাহিত এই রোগের হটস্পট হয়ে উঠেছে  কানপুর। শহরজুড়ে জারি করা হয়েছে সতর্কতা। জিকার সংক্রমণ রোধে বিভিন্ন কর্মসূচিও চালু করেছে স্থানীয় কর্তৃপক্ষ। ইতিমধ্যেই স্বাস্থ্যবিভাগ ৫২৫ জনের নমুনা সংগ্রহ করেছে।

২৩ অক্টোবর কানপুরে প্রথম জিকা আক্রান্তের খোঁজ মিলেছিল। তারপর থেকেই ক্রমে বাড়ছে আক্রান্তের সংখ্যা। সংক্রমণ নিয়ন্ত্রণে আনতে কড়া নজরদারি চালাচ্ছে জেলা প্রশাসন। কানপুরের চিফ মেডিক্যাল অফিসার ডাক্তার নেপাল সিং জানিয়েছেন, জিকাভাইরাসের প্রকোপ যেভাবে বাড়ছে তাতে চরম উদ্বেগে প্রশাসন। ইতিমধ্যে স্বাস্থ্য দফতরের তরফে একাধিক টিম গঠন করা হয়েছে। শনিবার ১৩জনের নমুনা জিকা ভাইরাস পজিটিভ এসেছে। ওইদিন কানপুর জেলায় মোট আক্রান্তের সংখ্যা ছিল ৭৯।

এরইমধ্যে উত্তরপ্রদেশের কনৌজেও একজন জিকা ভাইরাস পজিটিভের খোঁজ মিলেছে। আক্রান্ত ৪৫ বছরের এক ব্যক্তি। স্বাস্থ্য দফতর সূত্রে খবর, কানপুরের শিবরাজপুর এলাকায় ঘুরে গিয়েছেন তিনি। সম্ভবত সেখান থেকেই জিকাভাইরাসে আক্রান্ত হন ওই ব্যক্তি।   

বিশেষজ্ঞরা বলছেন, এডিস মশার কামড়ে জিকা ভাইরাস সংক্রমণ ছড়াচ্ছে। মূলত দিনের আলোয় এই মশা কামড়ায়। এই জ্বরের লক্ষ্মণ হল হালকা জ্বর, মাথা ব্যথা, র‍্যাশ, পেশি ও জয়েন্টে ব্যাথা।