Date : 2022-01-26

এবার ক্রিসমাশে বাড়িতেই বানিয়ে ফেলুন নলেন গুড়ের কেক….

নলেন গুড়ের সন্দেশ, পিঠে – পায়েস সকলেরই খুব পছন্দের । কয়েকদিন পরেই বড়দিন। আর বড়দিন মানেই নানা স্বাদের কেক। শুধু নামীদামী কোম্পানি নয় তার সঙ্গে পাল্লা দিয়ে স্থানীয় বেকারিগুলিও বিভিন্ন ধরনের কেক তৈরি করে। ভিন্ন ধরনের কেকের সঙ্গে এখন বাজারে পাওয়া যাচ্ছে নলেন গুড়ের কেকও। কেক আবার নলেন গুড়ের তৈরি ? শুনতে অবাক লাগলেও বর্ধমান বাজারে এই কেকই এখন হিট। বাজারে এই কেকের চাহিদা তুঙ্গে। আর ক্রিসমাসের আগে বর্ধমানের বেকারিগুলিতে কেক তৈরির কাজ চলছে জোরকদমে। বর্ধমানের একটি কেক প্রস্তুতকারক সংস্থার কর্ণধার জানান, “করোনার কারণে অন্যান্য ব্যবসায় মন্দা দেখা গেলেও কেকের চাহিদায় কোনও ভাঁটা পড়েনি। বছরের শেষের দিকে বড়দিনে আনন্দ উপভোগ করতে কেকের চাহিদা বাড়ে। বিভিন্ন স্বাদের কেক তৈরি করা হয় এই সময়। ফ্রুট কেক, পাম কেক, চকোলেট কেক, ভ্যানিলা কেকর সঙ্গে এগলেস কেকের চাহিদাও প্রচুর। তবে গত বছরে পরীক্ষামূলকভাবে খেজুর গুড়ের স্বাদে কেক তৈরি করা হয়েছিল। বাজারে এই কেকের ভালই সাড়া মিলেছে। অনেকেই এই নতুন স্বাদের কেক পছন্দ করেছেন। তাই এবারের খেজুর গুড়ের কেক তৈরিতে বেশি জোর দেওয়া হচ্ছে।”

স্থানীয় এক কেক প্রস্তুতকারক সংস্থার মালিক শেখ শামিম বলেন, গত বছরের লকডাউনের পরেও কেকের চাহিদা সেইভাবে কমেনি। এবছরের ভাল বাজারের আশা করছি আমরা। এখনও পর্যন্ত বর্ধমান শহরের বাজারে কেকের ভালই চাহিদা রয়েছে। তবে গ্রামের দিকগুলিতে চাহিদা অনেক কম। যেহেতু আমাদের জেলায় কৃষিনির্ভর অর্থনীতি। তাই এবারে ধান ভাল না হওয়ায় কেকের চাহিদার উপর কী প্রভাব পড়বে তা এখনই বলা যাচ্ছে না। আমরা ২৪ ধরনের ভিন্ন ভিন্ন স্বাদের কেক প্রস্তুত করি। তবে, গত বছর থেকে নলেন গুড়ের কেক তৈরি করেছি। ভাল চাহিদা থাকায় এবারে বেশি পরিমাণে উৎপাদনের পরিকল্পনা রয়েছে। এবারে গুড়ের উৎপাদন ভাল হয়েছে ফলে কেকের স্বাদও ভাল হবে বলেই আশা করছি। এক্কেবারে ঘরোয়া একটি উপকরণ খেজুর গুড়ের তৈরি কেক সকলের মন কাড়বে বলেই মনে করছি। আপনিও যদি নলেন গুড়ের কেক খেতে চান তাহলে চলে যেতে হবে বর্ধমান বাজারে। আর না হলে খুব সহজেই বাড়িতে বানিয়ে ফেলুন নলেন গুড়ের কেক তাও খুব কম সময়ে ও মাইক্রওভেন ছাড়া–

উপকরণ- ২ কাপ ময়দা , ৩ টি ডিম, ১.৫ কাপ নলেন গুড়, ১/২ কাপ সাদা তেল, ১ চা চামচ বাকিং পাউডার, ১/২ চা চামচ বাকিং সোডা, ১ চা চামচ ভ্যানিলা এসেন্স, ২ টেবিল চামচ কাজু এ কিসমিস ।

প্রণালী- প্রথমে ডিম ভালো করে ফেটিয়ে তার মধ্যে ময়দা আর গুড় দিয়ে ভালো করে ফেটাতে হবে। তারপর একে একে সাদা তেল , বেকিং পাউডার, বেকিং সোডা ও ভ্যানিলা এসেন্স দিয়ে আবারও ভালকরে ফেটাতে হবে। এবার তার মধ্যে কাজু ও কিসমিস দিয়ে ভালকরে ফেটাতে হবে। এলুমিনিয়াম ফয়েল কন্টেইনার নিয়ে তাতে তেল মাখিয়ে ও তলায় বাটার পেপার দিয়ে তাতে মিশ্রনটা ঢেলে দিতে হবে। আর খেয়াল রাখতে হবে যাতে কন্টেইনারের উপরের দিকে কিছুটা খালি থাকে তার উপরে কিছু কাজু ও কিসমিস ছড়িয়ে দিতে হবে। এবার প্রেসার কুকারে ৫০০ গ্রাম লবন ছড়িয়ে তার উপরে একটা প্লেট রেখে প্রেসার কুকার একটু প্রিহিট করে তার উপরে কেকের ব্যাটার টা রেখে কুকারের সিটি ও রবার খুলে ঢাকা দিয়ে ৪০ মিনিট লো হিটে রেখে দিতে হবে। ৪০ মিনিট হয়ে গেলে ঢাকা খুলে একটা সরু স্টিক ফুটিয়ে দেখতে হবে ভিতরে কুক হয়েছে কিনা। স্টিক শুকনো থাকলে ওভেন থেকে কুকার নামিয়ে নিতে হবে। ঠান্ডা হয়ে গেলে ফয়েল থেকে কেক বের করে নিলেই রেডি নলেন গুড়ের কেক। এবার কেটে নিয়ে ওপর থেকে নলেন গুড় ছড়িয়ে পরিবেশন করুন সুস্বাদু নলেন গুড়ের কেক ।