Date : 2022-05-27

বেআইনি টোটো বন্ধের নির্দেশ সত্বেও আজও তা কার্যকর করা হয়নি,বিরক্তি প্রকাশ আদালতের।রাজ্যের কাছে রিপোর্ট তলব

ষষ্ঠী চট্টোপাধ্যায়, রিপোর্টার:- হাইকোর্টের নির্দেশ মানা হয়নি কেন? রাজ্যজুড়ে বেআইনি টোটো বন্ধের নির্দেশ অবিলম্বে মানা হবে এমনটাই আশা করছে আদালত। ২২ ফেব্রুয়ারির মধ্যে পরিবহন দপ্তরের সচিব কে হাইকোর্টের রিপোর্ট জমা করতে হবে নির্দেশ হাইকোর্টে। বেআইনি টোটো বন্ধ নিয়ে আদালতের নির্দেশ মানা হয়নি । এই অভিযোগে আদালত অবমাননার মামলা দায়ের হয়। সেই মামলার প্রেক্ষিতে আদালত এই রায়।
রাজ্য জুড়ে বেআইনি টোটো চলাচল নিয়ে ২০১৪ থেকে কলকাতা হাইকোর্টে বহু মামলা দায়ের হয়। ২০১৭ মামলা করেন হুগলির শ্রীরামপুরের বাসিন্দা রিতা মিত্র। সমস্ত মামলা একসাথে শুনানি গ্রহণ করা হয়।গত১৭ আগস্ট ২০১৮ প্রধান বিচারপতি জ্যোতির্ময় ভট্টাচার্য ডিভিশন বেঞ্চ নির্দেশ দিয়েছিলেন ৩ মাসের মধ্যে রাজ্যজুড়ে বেআইনি চলাচল বন্ধ করতে হবে।কাজ না হওয়া আবেদনকারীরা ফের আদালতের দ্বারস্থ হন ১৬ নভেম্বর ২০১৮ সালে বিচারপতি দেবাশিস করগুপ্ত ডিভিশন বেঞ্চ এর নির্দেশ দিয়েছিলেন ৩১ মে ২০১৯ এর মধ্যে সমস্ত বেআইনি টোটো বন্ধ করতে হবে।ফের৫ আগস্ট ২০১৯ সালে তৎকালীন প্রধান বিচারপতি টি এস রাধাকৃষ্ণাণ এর ডিভিশন বেঞ্চ নির্দেশ দেন ৩১শে আগস্ট ২০১৯ এর মধ্যে সব বেআইনি টোটো বন্ধ করতে হবে।আদালতের নির্দেশ কাজ না হাওয়ায় আদালত অবমাননা মামলা দায়ের করেন রিতা মিত্র। সেই মামলার শুনানি চলাকালীন,বিচারপতি অরিজিৎ ব্যানার্জি ও বিচারপতি কৌশিক চন্দের ডিভিশন বেঞ্চ নির্দেশ দেন।রাজ্যের পক্ষ থেকে যদিও আদালতকে জানান হয় টোটো চলাচলের সঙ্গে প্রায় ৫ লক্ষ মানুষ জড়িয়ে আছে। তবে আইনজীবী মহলের মতে আদালত অনুমোদন প্রাপ্ত টোটো নয় বেআইনি টোটো বন্ধ নিয়েই রিপোর্ট তলব