Date : 2022-05-27

গালোয়ান সংঘর্ষে অংশ নেওয়া পিএলএ কমান্ডারের হাতে অলিম্পিকের মশাল! তোপ আমেরিকার

রিমা দত্ত, নিউজ ডেস্কঃ শীতকালীন অলিম্পিক নিয়ে বেজিং-এ কূটনৈতিক স্তরে চাপানউতোর। অলিম্পিকের মশাল জ্বলে উঠতেই ফের খোঁচা অমেরিকার। নেপথ্যে চিনের মশালবাহক। বেজিংয়ে অনুষ্ঠিত শীতাকালীন অলিম্পিকে মশালবাহক চিনা পিপলস লিবারেশন আর্মির কমান্ডার কি ফ্যাবাও। আর এই চিনা কমান্ডারকে নিয়েই আপত্তি জানালো আমেরিকার শীর্ষ পর্যায়ের এক সেনেটর।

প্রসঙ্গত, ২০২০ সালের ১৫ জুন গালোয়ান উপত্যকায় ভারত-চিন সেনার মধ্যকার সংঘর্ষে জড়িত ছিলেন ফ্যাবাও। তাঁর বিরুদ্ধে ভারতীয় সেনাকে আক্রমণ করার অভিযোগ রয়েছে। মার্কিন সেনেটের বিদেশ নীতি সংক্রান্ত কমিটির অন্যতম শীর্ষ পর্যায়ের সদস্য জিম রিশ এই বিষয়ে একটি টুইটও করেন।

টুইটে রিশ লেখেন, “এটা খুবই লজ্জার বিষয় যে বেজিং ২০২২ অলিম্পিকের মশালবাহক হিসেবে এমন একজনকে বেছে নিয়েছে যে সেই সেনা কমান্ডের অংশ ছিল যারা ২০২০ সালে ভারতের উপর আক্রমণ করেছিল এবং উইঘুরদের বিরুদ্ধে অত্যাচার চালিয়ে যাচ্ছে। আমেরিকা উইঘুরদের স্বাধীনতা এবং ভারতের সার্বভৌমত্বকে সব সময় সমর্থন জানাবে।”

গালোয়ানের যে সংঘর্ষে কমান্ডার কর্নেল সন্তোষ বাবু সহ ভারতীয় সেনাদের মধ্যে ২০ জন জওয়ান শহিদ হয়েছিলেন, সেই সংঘর্ষে গুরুতর ভাবে জখম হয়েছিলেন কি ফ্যাবাও। ভারতীয় সেনার হাতে তিনি আটকও হয়েছিলেন। যেই অঞ্চল নিয়ে সেই সময় ভারচ-চিন বিবাদ চলছিল সেই স্থানে ভারতের উপর ফ্যাবাওয়ের নেতৃত্বেই হামলা চালিয়েছিল চিনা সেনা। তারপর ভারতীয় সেনার পাল্টা জবাবে পালাতে গিয়ে বহু চিনা সেনা মারা গিয়েছিলেন। এই পরিস্থিতিতে লাদাখের সংঘর্ষে জখম হওয়া এক সেনা কর্তাকে অলিম্পিকের মশালবাহক বানানো বেজিংয়ের তরফে একটি রাজনৈতিক পদক্ষেপ আমেরিকার তা বুঝতে বাকি নেই।