Date : 2022-05-27

৬-৮ সপ্তাহ পিছিয়ে গেল নিট পিজির পরীক্ষা

সায়ান্তিকা ব্যানার্জি, রিপোর্টার : করোনা আবহে ৬ থেকে ৮ সপ্তাহের জন্য পিছিয়ে দেওয়া হল ন্যাশনাল এলিজিবিলিটি কাম এন্ট্রান্স টেস্ট বা নিট পিজি। আগামী ১২ মার্চ এই পরীক্ষা হওয়ার কথা ছিল। কিন্তু ২০২১ নিট পিজি কাউন্সেলিং যখন হওয়ার কথা, তখনই নিট পিজির পরীক্ষাও হওয়ার কথা ছিল। সেই কারণেই পরীক্ষা পিছিয়ে দেওয়া হল বলে জানিয়েছে স্বাস্থ্যমন্ত্রক।

এই পরীক্ষার সূচি পিছিয়ে দিতে সুপ্রিম কোর্টে মামলাও করেন ৬ এমবিবিএস পড়ুয়া। তাদের বক্তব্য ছিল ইন্টার্নশিপ শেষ না হওয়ার ফলে অনেকেই এই পরীক্ষায় বসতে পারবে না ফলে পরীক্ষা পিছিয়ে দেওয়া আবশ্যক।

ডিজিএইচএস-এর প্রকাশিত একটি চিঠিতে কর্মকর্তারা হাইলাইট করেন যে বিভিন্ন ক্ষেত্র থেকে আসা অনুরোধের প্রেক্ষিতেই এই পরীক্ষা স্থগিত করা হয়েছে। জানা যাচ্ছে যে,২০২২ সালে মে বা জুন মাসের মধ্যে হবে এই বছরের নিট পিজি পরীক্ষা।

কোভিড আবহে ২০২১ সালে নিট পরীক্ষা দেরিতে অনুষ্ঠিত হয়েছিল। আর এইকারণেই বহু এমবিবিএস স্নাতক এই বছরের নিট-পিজি পরীক্ষার জন্য অযোগ্য হয়ে পড়েন। তাছাড়া যে সব এমবিবিএস স্নাতক বর্তমানে তাদের ইন্টার্নশিপ শেষ করছেন তারাও এক বছর নষ্টের বিষয়ে চিন্তিত ছিলেন। কারণ তাদের ইন্টার্নশিপ এখনও শেষ হয়নি ফলে তারা প্রবেশিকা পরীক্ষার জন্য যোগ্য হবেন না। এই কারণেই পরীক্ষা পিছিয়ে দেওয়ার দাবি উঠেছিল। আর তাই এবার পরীক্ষা পিছিয়ে দেওয়াতে এই এমবিবিএস ও ইন্টার্নরা পিজি পরীক্ষায় বসতে পারবেন।