Date : 2022-10-05

চরক শপথই চূড়ান্ত – নির্দেশিকা প্রকাশ ন্যাশনাল মেডিক্যাল কমিশনের

সায়ান্তিকা ব্যানার্জি, রিপোর্টার : সিদ্ধান্তেই ঝড় উঠেছিল। এবার সেই বিতর্কিত ‘চরক শপথের’ ওপরেই চূড়ান্ত শিলমোহর দিল ন্যাশনাল মেডিক্যাল কমিশন। তাদের পক্ষ থেকে নির্দেশিকা জারি করে জানিয়ে দেওয়া হল মেডিক্যাল পড়ুয়াদের সেশনের শুরুতে চরক শপথই নিতে হবে।

শুধু তাই নয় আরও এক সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়েছে এনএমসির তরফে। প্রকাশিত ওই নির্দেশিকায় আরও বলা হয়েছে পড়ুয়াদের এক সপ্তাহের যে ফাউন্ডেশন কোর্স চলবে সেখানে বাধ্যতামূলক করা হল যোগ ব্যয়ামের অনুশীলনকে। তার সাথে বাধ্যতামূলক ভাবে সমস্ত মেডিক্যাল কলেজে পড়ুয়াদের যোগা করতে হবে ১২ই জুন থেকে ২১ শে জুন, দশদিন। উল্লেখ্য ১২ই জুন আন্তর্জাতিক যোগ দিবস।

আর এখানেই উঠছে প্রশ্ন। কিছু দিন আগে যখন এনএমসির এই সিদ্ধান্ত সামনে এসেছিল তখনই চরম বিতর্ক সৃষ্টি হয়েছিল। প্রশ্ন উঠেছিল চিকিৎসাক্ষেত্রেও কি গৈরিকীকরণ? এবার আজকের এই চূড়ান্ত সিদ্ধান্ত যে সেই প্রশ্নকে আরও দৃঢ় করল তা বলার অপেক্ষা রাখে না।

এত দিন নতুন চিকিৎসকরা যে শপথ নিতেন তা হিপোক্রেটিক ওথ নামে পরিচিত ছিল। মূলত প্রাচীন গ্রিক চিকিৎসক হিপোক্রেটসের নামাঙ্কিত এই শপথই হিপোক্রেটিক ওথ হিসেবে পরিচিত। কিন্তু ন্যাশনাল মেডিক্যাল কমিশনের নয়া সিদ্ধান্ত ঘিরে দানা বাঁধছে বিতর্ক। ইতিমধ্যেই বেশ কিছু চিকিৎসক সংগঠন এর বিরোধিতা করেছেন।