Date : 2022-12-09

গান শোনাতে এসেছিলেন – ‘গান’স্যালুট নিয়ে, শ্রোতাদের কান্নায় কলকাতা ছাড়লেন নিথর কে কে

সায়ন্তিকা ব্যানার্জি, সাংবাদিকঃ সিটি অফ জয়তে ছড়িয়ে দিতে এসেছিলেন তার গলার যাদু। তা ছড়িয়েওছিলেন। তিনি তো গানই শোনাতে এসেছিলেন, কিন্তু ফেরাটা এমন হবে কে জানত! গান শোনাতে এসেছিলেন, গান স্যালুট নিয়ে ফিরলেন কৃষ্ণকুমার কুন্নাথ ওরফে সবার প্রিয় কে কে।

এমন একটা মানুষ তিনি যার জন্য একটা গোটা রাত জেগে কাটাল একটা গোটা প্রজন্ম যাদের বড় হয়ে ওঠা কে কে-এর গানে। সেই টিন এজে বড় হয়ে ওঠার হাতছানিতে কে কে, প্রেমে বিচ্ছেদে সবেতেই তিনি। সেই মানুষটা চলে গেলেন এভাবে! এত আচমকা! এত দ্রুত! মানা যাচ্ছেনা কিছুতেই।

মঙ্গল বার রাতে নজরুল মঞ্চে শো চলাকালীনই অসুস্থ হয়ে পড়েন তিনি। সেখান থেকে তিনি চলে যান হোটেলে সেখানে আরও অসুস্থ হয়ে পড়েন। তারপর আলিপুরের একটি নার্সিংহোমে নিয়ে গেলে ব্রট ডেড ঘোষণা করা হয়।

বুধবার সকালে তার পরিবার আসে কলকাতায়। তারপর কে কে-এর মরদেহ রওনা হয় এসএসকেএমের উদ্দেশ্যে। সেখানেই সম্পন্ন হয় ময়নাতদন্ত। জানা যায় রাজ্য সরকারের তরফে দেওয়া হবে গান স্যালুট। সেই মত প্রস্তুতি শুরু হয় রবীন্দ্র সদনে।

বাঁকুড়া থেকে ফিরেই রবীন্দ্র সদনে আসেন মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়। গোটা বিষয়টির তদারকি করেন তিনি। তার কিছুক্ষণের মধ্যেই রবীন্দ্র সদনে কে কে-এর নিথর দেহ। সেখানে তাকে দেওয়া হয় গান স্যালুট, শ্রদ্ধা জানান মুখ্যমন্ত্রী। কান্নায় ভেঙে পড়েন তার স্ত্রী পুত্র কন্যা।

আর তারপর, শেষ বার কলকাতা ছাড়লেন কে কে। আর কোন দিনও তার লাইভ কনসার্টে মাতোয়ারা হয়ে ওঠা হবে না। তার গানে উদ্বেল হওয়া হবে না। গান গুলো থেকে যাবে আর থাকবে অজস্র স্মৃতি। আর তো কিছুই বলার নেই সত্যি! “আব কহেনা অর কেয়া জব তুনে ক্যাহে দিয়া আলবিদা”! আলবিদা কে কে…