Date : 2022-10-02

যখন তখন বুকে ব্যথা, দিনভর ক্লান্তিভাব – হার্ট অ্যাটাকের লক্ষ্মণ নয় তো!

সায়ন্তিকা ব্যানার্জি, সাংবাদিকঃ প্রতি বছর পৃথিবীতে সবচেয়ে বেশি মানুষ প্রাণ হারান হৃদ্‌রোগে আক্রান্ত হয়ে। মানসিক চাপ থেকে অতিরিক্ত কর্মব্যস্ততা, অনিদ্রা কিংবা অন্যান্য আনুষঙ্গিক রোগ অনেক ক্ষেত্রেই বাড়িয়ে দিতে পারে হৃদ্‌রোগের ঝুঁকি।

হার্ট অ্যাটাকের সবচেয়ে বড় লক্ষণ বুকে তীব্র ব্যথা বলে মনে করা হয়। তবে, সবসময় হার্ট অ্যাটাক এমন নয়। কখনও কখনও এই ব্যথা খুব হালকা হয় এবং লোকেরা মনে করে যে এই ব্যথা বদহজম বা গ্যাসের কারণে হচ্ছে। ডাক্তার যখন কার্ডিয়াক আল্ট্রাসাউন্ড করেন, তখন দেখা যায় যে তাঁর মৃদু হার্ট অ্যাটাক হয়েছে।

সাধারণত বুকে ব্যথা অনুভব করা, খুব ক্লান্ত বোধ, যেকোনো কাজে শ্বাসকষ্ট, হৃৎপিণ্ডে জ্বালাপোড়া, বদহজম এবং ক্রমাগত অস্থিরতা অনুভব করা নীরব হার্ট অ্যাটাকের লক্ষণ হতে পারে। তাই কোনো ধরনের সমস্যা মনে হলে অবশ্যই চিকিৎসকের সঙ্গে যোগাযোগ করুন।

আচমকা অতিরিক্ত ঘেমে যাওয়ার সমস্যা শুরু হলে সে তা অবহেলা করবেন না। এটিও হার্ট অ্যাটাকের একটি লক্ষণ। যখন হার্ট ব্লক হয় তখন রক্ত সঞ্চালনে হৃদপিণ্ডের অনেক বেশি কাজ করতে হয়। এই অতিরিক্ত পরিশ্রমের ফলে ঘামের সৃষ্টি হয় এবং এই ঘাম সাধারণত অনেক ঠাণ্ডা হয়ে থাকে। এই ধরনের সমস্যাকে অবহেলা না করে চিকিত্সকের কাছে যাওয়াই বুদ্ধিমানের কাজ।

একাধিক গবেষণায় দেখা গিয়েছে, হার্ট অ্যাটাকের আগে থেকে বেশিরভাগ আক্রান্তরই বদহজমের সমস্যা এবং গ্যাস্ট্রোইনটেস্টিনাল সমস্যা দেখা দেয়। এছাড়াও বুক জ্বালা যা আমরা অনেকে স্বাভাবিক বদহজমের সমস্যা ভেবে অবহেলা করি, তা-ও হতে পারে হার্ট অ্যাটাকের ইঙ্গিত।

বিশেষজ্ঞরা বলছেন, হৃদ্‌রোগের আশঙ্কা কমাতে চাইলে দৈনন্দিন অভ্যাসে আনতে হবে ছোট্ট কিছু বদল।

পর্যাপ্ত ঘুমের অভাব হৃদ্‌রোগের অন্যতম বড় কারণ। চিকিৎসকরা বলছেন, শরীর সুস্থ রাখতে দৈনিক ছয় থেকে আট ঘণ্টা ঘুম অবশ্যই প্রয়োজন।

অতিরিক্ত তেল-মশলাসমৃদ্ধ খাবার রোজ না খাওয়াই ভাল। মাছ-মাংসর সঙ্গ সপ্তাহে কয়েক দিন বেশি পরিমাণে সবুজ শাকসব্জি ও ফাইবারযুক্ত খাবারও খেতে হবে। শাকসব্জিতে কোলেস্টেরলের পরিমাণ কম, তাই হৃদ্‌রোগের ঝুঁকি কমে।

 হৃদ্‌যন্ত্রের নিয়মিত পরীক্ষায় অনেক ক্ষেত্রেই প্রতিরোধ করা যেতে পারে হৃদ্‌রোগ। কিন্তু অনেকেই বুকে ব্যথা, ক্লান্তি বা শারীরিক অস্বস্তির মতো লক্ষণগুলিকে গ্যাসের সমস্যা বলে এড়িয়ে যান। এই ধরনের সমস্যা অবহেলা করা অনুচিত।