Date : 2022-12-02

থেমে গেল মুক্তো খোঁজা, না ফেরার দেশে নির্মলা মিশ্র

সায়ন্তিকা ব্যানার্জি, সাংবাদিকঃ ও তোতাপাখিরে, শিকল খুলে উড়িয়ে দেব মাকে যদি এনে দাও’, এই গান শুনে চোখ ভেজেনি এমন মানুষ খুব কমই আছে। আর চোখ ভেজানোর মানুষটার নাম নির্মলা মিশ্র। আর শনিবার গভীর রাতে সেই মানুষটা আরও একবার আমাদের চোখ ভিজিয়ে পাড়ি দিলেন না ফেরার দেশে। তার প্রয়াণে শোকস্তব্ধ মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়।

শনিবার রাতে বাড়িতে হৃদ্‌রোগে আক্রান্ত হন তিনি। রাত ১২টা ৫ মিনিট নাগাদ দক্ষিণ কলকাতার চেতলায় নিজের বাড়িতেই তাঁর মৃত্যু হয়। মৃত্যুকালে তাঁর বয়স হয়েছিল ৮১ বছর। পরিবারে তাঁর স্বামী, পুত্র এবং পুত্রবধূ রয়েছেন

চিকিৎসক জানিয়েছেন, দীর্ঘ দিন ধরেই তিনি অসুস্থ ছিলেন। চিকিৎসার জন্য গত ৫ বছরে বেশ কয়েক বার হাসপাতালে ভর্তিও হয়েছিলেন। তিন বার হৃদ্‌রোগে আক্রান্তও হয়েছেন। তিন-চার দিন আগে অসুস্থতা হঠাৎই বাড়ে। গত বৃহস্পতিবার তাঁর রক্তচাপ বেশ খানিকটা কমে যায়। কিন্তু তিনি আর হাসপাতালে যেতে চাইছিলেন না। শনিবার সকাল থেকে শ্বাসকষ্ট শুরু হয় তাঁর। রাতে তিনি মারা যান।

তার প্রয়াণে শোকস্তব্ধ সৈকত মিত্র। তিনি বলেছেন ‘আমাকে ছেলের মতো নয়, ছেলেই মনে করতেন। নিকট আত্মীয় বললেও কম বলা হয়। ওঁর মতো প্রাণবন্ত মানুষ খুব কম দেখেছি। শিল্পী হিসাবে উনি কেমন, সেটা বলার যোগ্যতা আমার নেই। সাত বছর ধরে তিনি বিছানায় শুয়ে, সারাদিন যে মানুষটা গানের মধ্যে ডুবে থাকতেন, তিনি কথাও বলতে পারছেন না। এটা দেখতে ভাল লাগত না। যত বার দেখা করতে গিয়েছি, উনি কথা বলার আপ্রাণ চেষ্টা করেছেন। খুব কষ্ট হত এই অবস্থায় নির্মলা পিসিকে দেখতে।একেবারে ছোট্ট শিশু মতো ছিলেন।’