Date : 2022-08-10

বিরোধীদের দাবি মানতে নারাজ সিলেবাস কমিটির চেয়ারম্যান

নাজিয়া রহমান, সাংবাদিক:- অষ্টম শ্রেণির ইতিহাস বইতে পার্থ চট্টোপাধ্যায়ের নাম নিয়ে শুরু হয়েছে বিতর্ক। বিরোধীদের দাবি বইয়ের পাতা থেকে বাদ দেওয়া হোক তাঁর নাম। বিরোধীদের এই দাবি খারিজ করল সিলেবাস কমিটি। কমিটির চেয়ারম্যানের মতে, একটি আন্দোলনের প্রক্ষিতে তাঁর নামের উল্লেখ রয়েছে। এই রকম নাম থাকার বহু উদাহরণ রয়েছে।

শিক্ষক নিয়োগ দূর্ণীতির অভিযোগে ইডির হাতে গ্রেফতার প্রাক্তন শিক্ষামন্ত্রী পার্থ চট্টোপাধ্যায়। পার্থ ও তাঁর ঘনিষ্ঠ অর্পিতার ফ্ল্যাট থেকে প্রায় ৫০ কোটি নগদ টাকা এবং বহু মূল্যের সোনার গয়না সহ বিদেশি মূদ্রা উদ্ধার হয়েছে। পার্থর বাড়ি থেকে পাওয়া গিয়েছে দুজনের নামে বহু সম্পত্তির নথি। রাজ্যের অনেক জায়গায় সম্পত্তির হদিশও পেয়েছে ইডি।এই অবস্থায় পার্থ চট্টোপাধ্যায়কে তাঁর দল যেমন বহিষ্কার করেছে তেমনই তাকে সরিয়ে দেওয়া হয়েছে মন্ত্রীসভা থেকে। এই অবস্থায় বিরোধী রাজনৈতিক নেতারা প্রশ্ন তোলেন, এমন কলঙ্কিত প্রাক্তন শিক্ষামন্ত্রীর নাম ইতিহাস বইয়ে থাকলে পড়ুয়ারা কী শিখবে? ইতিহাস বইয়ের পাতা থেকে বাদ দেওয়া হোক তাঁর নাম। বিরোধীদের এই দাবি উড়িয়ে দিয়েছে সিলেবাস কমিটি। কমিটির বক্তব্য, ২০০৬ সাল থেকে সিঙ্গুর আন্দোলনে তৃণমূল নেত্রীর পাশে সব সময় ছিলেন তখনকার বিরোধী দলনেতা পার্থ চট্টোপাধ্যায়।  সেই কারণেই তাঁর নামের উল্লেখ রয়েছে অষ্টম শ্রেণির ইতিহাস বই-এ।

প্রসঙ্গত অষ্টম শ্রেণির ইতিহাস বইতে ঠাঁই পেয়েছে সিঙ্গুরের জমি আন্দোলন। সিঙ্গুর আন্দোলনের নেত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের নাম যেমন আছে তেমনই বইয়ের পাতায় লেখা রয়েছে তৎকালীন বিরোধী দলনেতা পার্থ চট্টোপাধ্যায়ের নাম। একটি ইতিহাসের সাক্ষী হিসেবেই তাঁর নাম উল্লেখ করা হয়েছে বলেও জানান অভীক মজুমদার। তাই বিরোধীদের দাবি মানতে নারাজ সিলেবাস কমিটির চেয়ারম্যান।