Date : 2022-12-03

টেট চাকুরিপ্রার্থীদের আন্দোলনে ধুন্ধুমার

নাজিয়া রহমান, সাংবাদিক:- ২০১৪ প্রাথমিক টেট পাশ চাকুরিপ্রার্থীদের আন্দোলনে ধুন্ধুমার বিধাননগর থেকে এক্সাইড- ক্যামাক স্ট্রীট। নিয়োগের দাবিতে বুধবার দুপুরে হঠাৎই জমায়েত শুরু করেন টেট উত্তীর্ণ চাকুরিপ্রার্থীরা, শুরু করেন বিক্ষোভ। আন্দোলনকারীদের ছত্রভঙ্গ করতে পুলিশ ধরপাকড় শুরু করে। আন্দোলনের জিরে রণক্ষেত্রের রূপ নেয় এক্সাইডের মত ব্যস্ততম এলাকা। পরিস্থিতি সামাল দিতে তিনের ক্ষেত্রে তুলতে শুরু করেন পুলিশ পুলিশের সঙ্গে ধস্তাধস্তিতে আহত হন কয়েকজন আন্দোলনকারী। পুলিশ আন্দোলনকারীদের প্রিজন ভ্যানে তুলতে শুরু করলে পাল্টা আন্দোলনকারীরা প্রিজন ভ্যানের চাকার নিচে মাথা দিয়ে আন্দোলন দেখাতে শুরু করেন। হয় চাকরি নয় মৃত্যু এই স্লোগান তুলেন আন্দোলনকারীরা। চাকার সামনে থেকে আন্দোলনকারীদের টেনে বের করা হয়।

আন্দোলনকারীদের চ্যাংদোলা করে, টেনে হিচড়ে প্রিজন ভ্যানে তোলা হয়। এক্সাইড মোড়ের পর আন্দোলনকারীরা বিক্ষোভ দেখাতে শুরু করেন ক্যামাক স্ট্রিটে তৃণমূল সংসদ অভিষেক বন্দ্যোপাধ্যায়ের অফিসের সামনে বিক্ষোভ দেখাতে শুরু করেন। আর যার জেরে প্রায় রণক্ষেত্রের রূপ নেয় ক্যামাক ট্রীট চত্বর। পরিস্থিতি সামাল দিতে ফের ধরপাকড় শুরু করেন পুলিশ। মুহূর্তে চাকুরিপ্রার্থীদের সঙ্গে খণ্ডযুদ্ধ বেধে যায় পুলিশের। পরিস্থিতি সামাল দিতে পুলিশ আন্দোলনকারীদের প্রিজন ভ্যানে তোলে।এই ধুন্ধুমার পরিস্থিতির মধ্যে অবরুদ্ধ হয়ে পড়ে এজেসি বোস রোড, জওহরলাল নেহেরু রোডের মতো গুরুত্বপূর্ণ রাস্তা৷ রাস্তার দু’দিকেই যান চলাচল সম্পূর্ণ বন্ধ হয়ে যায়। এদিকে  ধস্তাধস্তির মধ্যে পড়ে অসুস্থ হয়ে পড়েন বেশ কয়েক জন বিক্ষোভকারী। আন্দোলনকারীদের দাবি, ২০১৪ সালে তাঁরা টেট পাশ করেছেন। তবু এখনও মেলেনি নিয়োগ পত্র।

আর তাই বুধবার আচমকাই নিয়োগের দাবিতেই তাঁরা রবীন্দ্র সদন মেট্রোর সামনে জমায়েত হন। আন্দোলনকারীদের সেই বিক্ষোভ সামাল দিতে হিমসিম খেতে হয় পুলিশকে। পরিস্থিতি সামাল দিতে বিশাল পুলিশবাহিনী নিয়ে ঘটনাস্থলে উপস্থিত হন ডিসি সাউথ। প্রথমে এদিন ২০১৪-র টেট উত্তীর্ণ  চাকরিপ্রার্থীদের প্রাথমিক শিক্ষা পর্ষদ অফিস অভিযান ঘিরে উত্তেজনা ছড়ায়। সেখানে মোতায়েন করা হয় বিশাল পুলিশবাহিনি। পাশাপাশি সল্টলেকের করুণাময়ীতে জমায়েতের ডাক দেন চাকরিপ্রার্থীরা। তবে সেক্টর ফাইভ মেট্রো স্টেশনেই বিক্ষোভকারীদের আটকে দেয় পুলিশ। সল্টলেক চত্ত্বরে টেট উত্তির্ন চাকুরিপ্রার্থীদের আন্দোলন তেমন রনক্ষেণের রূপ না নিলেও ক্যামাক স্ট্রীট ও এক্সাইড মোড়ে আন্দোলন সামাল দিতে পুলিশকে বেশ বেগ পেতে হয়।