Date : 2023-02-02

জন্তর মন্তরের সামনে ধর্নায় ভারতীয় কুস্তিগিররা

ভারতীয় ক্রৣড়াক্ষেত্রে নজিরবিহীন ঘটনা। জন্তর মন্তরের সামনে ধর্নায় ভারতীয় কুস্তিগিররা। ধর্নায় সামিল ভারতের প্রথম সারির কুস্তিগিররা রয়েছেন ভিনেশ ফোগত, সাক্ষী মালিকের মতো তারকারা। ভিনিশ অভিযোগ করছেন, জাতীয় শিবিরে মহিলা কুস্তিগিরদের যৌন হেনস্থা করা হচ্ছে। এক্ষেত্রে সরাসরি যোগ রয়েছে ভারতীয় কুস্তি ফেডারেশনের চিফ ব্রিজ ভূষণ সিংয়ের বিরুদ্ধে। ভিনেশের কাছে ইতিমধ্যেই প্রায় 20জন কুস্তিবিদ এসে একই অভিযোগ জানিয়েছেন। স্রেফ ডাব্লুএফআই সভাপতির বিপক্ষেই নয়, যৌন হেনস্থার অভিযোগ রয়েছে জাতীয় শিবিরের প্রশিক্ষকের বিপক্ষেও। উল্লেখ্য জাতীয় কুস্তি ফে়ডারেশনের সভাপতি ব্রিজ ভুষণ সিং বর্তমানে বিজেপির সাংসদ। ফলে এই ঘটনা রাজনৈতিকভাবেও তোলপার ফেলেছে। যে দেশে এখনও মাঝে মধ্যেই শোনা যায় ভ্রুণ হত্যার খবর। যে দেশে হরিয়ানার সাক্ষী মালিক, ভিনেশ ফোগতরা দেশের ক্রীড়াক্ষেত্রে মহিলাদের উদ্বুদ্ধ করতে এগিয়ে এসেছেন,সেখানেই নারিদের খেলার মঞ্চে যৌন হেনস্থার অভিযোগ স্বভাবতই প্রশ্ন তুলছে। ইতিমধ্যেই ঘটনার তদন্ত দাবি করেছ দিল্লির মহিলা কমিশন। জন্তর মন্তরের সামনে ভিনেশ ফোগত, সাক্ষী মালিকদের পাশাপাশি ঘর্নায় বসেছেন বজরং পুনিয়ার মতো দেশকে পদক এনে দেওয়া খেলোয়াড়রা।

ভিনেশ জানিয়েছেন-
ভিনেশের অভিযোগ
আমি নিজে যৌন হেনস্থার মুখোমুখি না হলেও শিবিরের বহু খেলোয়াড় এসে আমায় একই অভিযোগ জানিয়েছে। তারা প্রকাশ্যে মুখ খুলতে ভয় পাচ্ছে, কারণ যাদের বিপক্ষে তাঁদের অভিযোগ তারা প্রভাবশালি। যদি কোনও মহিলা খেলোয়াড় জীবন নিয়ে কোনও ভুল সিদ্ধান্ত নেয় তাহলে তার জন্য দায়ি থাকবে ডাব্লুএফআই-এর সভাপতি ব্রিজ ভুষণ চরন সিং। ইতিমধ্যেই কুস্তি ফেডারেশনের এই ঘটনা নিয়ে মুখ খুলেছে রাজনৈতিক দলগুলি। কুস্তি ফেডারেশনের চিফ নিজে সব অভিযোগ উড়িয়ে দিলেও এতে যে আগুন নিভছে না তা বলাই যায়। সাক্ষী মালিকের মতো অলিম্পিক্স পদকজয়ী বক্সারও বলেছেন –
সাক্ষীর অভিযোগ
কুস্তিগিররা কঠোর পরিশ্রম করে দিন রাত, দেশে পদক আনার জন্য, সেখানে ফেডারেশন তাঁদেরই সর্বনাশ করছে। আমাদের এই লড়াই কেন্দ্রীয় সরকার বা সাইয়ের বিরুদ্ধে নয়,শুধুই ফেডারেশন সভাপতির বিপক্ষে।ফলে রাজধানির ধর্নার আঁচ যে ভারতীয় ক্রীড়ামহলের এক কলঙ্কিত অধ্যায় হয়ে রইল তা বলাই যায়। কত দ্রুত এই আগুন নিভে ফের ছন্দ ফেরে ভারতীয় কুস্তিতে, সেটাই এখন দেখার।