Date : 2024-06-21

বিশ্বাসঘাতক বায়রন বিশ্বাসের বিরুদ্ধে এবার মামলা দায়ের কলকাতা হাইকোর্টে।

ষষ্ঠী চট্টোপাধ্যায় সাংবাদিক

মুর্শিদাবাদ জেলার সাগর্দিঘি বিধানসভায় উপনির্বাচনে জয়লাভের ৩ মাসের মধ্যে দলবদল করেন কংগ্রেসে টিকিটে জিতে আসা বায়রন বিশ্বাস। কংগ্রেস বিধায়ক বায়রন বিশ্বাসের বিধায়ক পদ খারিজের দাবিতে এবার হাইকোর্টে দায়ের হল জনস্বার্থ মামলা।

সোমবার আইনজীবী সৌম্যশুভ্র রায় মামলাটি দায়ের করেন প্রধান বিচারপতি টি শিবজ্ঞানমের ডিভিশন বেঞ্চে।

মামলার বয়ান অনুযায়ী আইনজীবী জানান গত মার্চ মাসে সাগরদিঘি উপনির্বাচনে তৃণমূল কংগ্রেস জেলাসভাপতি দেবাশীষ বন্দ্যোপাধ্যায়কে পরাজিত করেন বাম সমর্থিত কংগ্রেস প্রার্থী বায়রন বিশ্বাস। তিনমাসের মধ্যে, মে মাসের শেষে অভিষেক বন্দ্যোপাধ্যায়ের জন জোয়ার কর্মসূচিতে ই কংগ্রেস ছেড়ে তৃণমূলে যোগদান করেন।

বাম কংগ্রেস জোটের প্রার্থী বায়রন বিশ্বাসের জয় লাভে বাড়তি অক্সিজেন জুগিয়ে ছিল বিধানসভায় শুন্য আসন থাকা সিপিআইএম এবং কংগ্রেস কে। সাংসদ অধীর রঞ্জন চৌধুরীর ঘনিষ্ঠ হয়ে কংগ্রেসে যোগদান এবং উপনির্বাচনে লড়াই করে বিধায়ক হওয়া। বিধানসভায় শপথ নিতে যাওয়ার পর স্পিকার বিমান বন্দ্যোপাধ্যায়ের মুখে শোনা গিয়েছিল, ‘বায়রন তো তৃণমূলেরই’।

বায়রন তৃণমূলে যোগদানের পরই আইনজীবী সৌম্যশুভ্র রায় এর আগে বিধানসভার স্পিকারকে চিঠি লিখেছিলেন। তার কোনও জবাব না পেয়ে এবার উচ্চ আদালতে জনস্বার্থ মামলা দায়ের করলেন তিনি। চলতি সপ্তাহে শুনানির সম্ভাবনা।