Date : 2024-02-25

Biscuit Tea Cup edible : আপ্পার দোকানে চায়ের সঙ্গে খাওয়া যাবে চায়ের কাপও

নাজিয়া রহমান, সাংবাদিক : আপ্পার হাতের শুধু চা নয়, শেষে চায়ের কাপ টাও খেতে হয়।’ বাগবাজার গেলেই একটি গুমটি চায়ের দোকানের সাইনবোর্ডে লেখা এমনই একটি লাইন। কি আছে আপ্পার চায়ের কাপে? যা অবাক করছে ক্রেতাদের।

বি কম পাশ করেও চাকরি করতে ভালো লাগেনি বাগবাজারের আপ্পা ওরফে শুভজিৎ রায়চৌধুরীর । আর পাঁচটা বাঙালি তরুণ সচরাচর যা করে না, সেই চাকরির মোহ ত্যাগ করেছেন তিনি। স্বনির্ভর হতে নিজেই অন্যভাবে পথ চলা শুরু করেছেন। নতুন কিছু করার ইচ্ছে নিয়ে বাবার চায়ের দোকানে চা বিক্রি করতে শুরু করেন এই যুবক। তবে গদে মাপা মাটির ভাঁড় বা কাগজের কাপে চা নয়। এমন কিছু করতে হবে যা মানুষের মন কাড়বে। আর যেমন ভাবনা তেমন কাজ আপ্পার। দোকানের সাইনবোর্ডে তিনি লেখেন-‘ আপ্পার হাতের শুধু চা নয়, শেষে চায়ের কাপ টাও খেতে হয়।’ সাইনবোর্ডের লেখা পড়ে অবশ্যই অবাক হচ্ছেন। কিন্তু হ্যাঁ, এটা সত্যি। আপ্পার দোকানে পাওয়া যায় এমনই একটি ভাঁড়। যে ভাঁড়ে চা খাওয়ার পর ভাঁড়টাও খেয়ে নিতে হয়। বিস্কুটের তৈরি চায়ের কাপ। যে বিস্কুট খেলে চকলেট বা ভ্যানিলার স্বাদও মিলবে। নিত্যদিন কাগজের কাপ ও মাটির ভাঁড়ের কাপের পাশাপাশি সৌখিন ও ভোজনরসিক মানুষেরা বিস্কুটের কাপে চা খেতেও আসেন আপ্পার কাছে। শুভজিৎ রায়চৌধুরী তথা আদরের আপ্পার এই অভিনব আইডিয়াতে খুশি এলাকার মানুষও।

শুধুমাত্র কাপের ভাঁড়ে নয়। চায়ের মধ্যে নানা স্বাদ দেওয়াও চেষ্টা করেন আপ্পা। চকলেট, ভ্যানিলা, স্ট্রবেরি সহ আট রকম স্বাদের চা পাওয়া যায় আপ্পার দোকানে। আর একটি স্পেশাল আইসক্রিম টি পাওয়া যায় এখানে। যার মূল্য ৫০ টাকা।