Date : 2024-02-25

রাজ্য জয়েন্টের আবেদন ফি তে বিশেষ ছাড়।

নাজিয়া রহমান, সাংবাদিক : রাজ্য জয়েন্টের পক্ষ থেকে সুখবর ছাত্রী ও তৃতীয় লিঙ্গের পরীক্ষার্থীদের জন্য। তাঁদের জন্য চালু করা হল আবেদন ফি-তে বিশেষ ছাড়। ছাত্রীদের ইঞ্জিনিয়ারিং পাঠে উৎসাহিত করতে রাজ্য জয়েন্ট এন্ট্রান্স বোর্ডের এই বিশেষ উদ্যোগ।

ছাত্র পরীক্ষার্থীদের পাশাপাশি ছাত্রী পরীক্ষার্থীরাও যাতে ইঞ্জিনিয়ারিং পাঠ গ্রহণে এগিয়ে আসে সেদিকে বিশেষ উদ্যোগ নিল রাজ্য জয়েন্ট এন্ট্রান্স বোর্ড। ২০২৪ সালের রাজ্য জয়েন্ট থেকেই চালু হচ্ছে ছাত্রীদের জন্য বিশেষ ছাড়। এই ছাড় দেওয়া হচ্ছে আবেদন ফিতে।  একইসঙ্গে আবেদন ফি-তে বিশেষ ছাড় দেওয়া হচ্ছে তৃতীয় লিঙ্গের পরীক্ষার্থীদেরও। এক্স হ্যান্ডেলে একথা জানিয়ে শিক্ষামন্ত্রী ব্রাত‌্য বসু জানান, তিনি লিখেছেন, “পশ্চিমবঙ্গ জয়েন্ট এন্ট্রান্স পরীক্ষা, ২০২৪ এর অনলাইন রেজিস্ট্রেশন চালু হবে ২৮ ডিসেম্বর থেকে। মাননীয় মুখ‌্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ‌্যায়ের কন‌্যাসন্তানদের পড়াশুনোয় উৎসাহ দেওয়ার আদর্শকে সামনে রেখেই এ বছর অসংরক্ষিত, সংরক্ষিত শ্রেণির মহিলা পরীক্ষার্থী এবং ট্রান্সজেন্ডার পরীক্ষার্থীদের রেজিস্ট্রেশন ফিজ কমিয়ে দেওয়া হচ্ছে।” ২০২৩ সালের পরিসংখ্যান অনুযায়ী রাজ্য জয়েন্টে ছাত্রদের তুলনায় ছাত্রীদের অংশগ্রহণ ও সফলতা অনেকটাই কম।

২০২৩ এর রাজ্য জয়েন্টের পরীক্ষায় সফল ছাত্রছাত্রী ৯৬ হাজার ৯১৩ জন। যার মধ্যে সফল ছাত্র ৭০ হাজার ৩৪১ জন। এবং সফল ছাত্রী ২৬ হাজার ৫৭১ জন। তাই ছাত্রী পরীক্ষার্থীদের ইঞ্জিনিয়ারিং পাঠে উৎসাহিত করতে আবেদন ফি বাবদ বদল আনা হচ্ছে।

সাধারণ ছাত্রদের ক্ষেত্রে আবেদন ফি ৫০০টাকা দিতে হবে। অন্যদিকে সাধারণ ছাত্রীদের ক্ষেত্রে আবেদন ফি কমে হল ৪০০ টাকা।
সংরক্ষিত ছাত্রদের ক্ষেত্রে আগের মতই আবেদন ফি বাবদ ৪০০ টাকা দিতে হবে। অন্যদিকে এবার থেকে সংরক্ষিত ছাত্রীদের আবেদন ফি কমে হল ৩০০ টাকা। পাশাপাশি
ট্রান্সজেন্ডার বা তৃতীয় লিঙ্গের পরীক্ষার্থীদের জন্য ৪০০ টাকার ফি কমিয়ে ৩০০ টাকা করা হল।

২০২৪ সালের ২৮ এপ্রিল রাজ্য জয়েন্ট এন্ট্রান্স পরীক্ষা হওয়ার কথা। বোর্ডের তরফে জানানো হয়েছে, পরীক্ষায় অংশগ্রহণের জন্য অনলাইনে জানাতে পারবেন পরীক্ষার্থীরা। আবেদন করার প্রক্রিয়া শুরু হবে আগামিকাল অর্থাৎ ২৮ ডিসেম্বর থেকে। এই প্রক্রিয়া চলবে ২০২৪ সালের ৩১ জানুয়ারি পর্যন্ত।